দিল্লির ভোটে লড়ছেন ইমরান খান। তাও একজন নয়, দুই-দুই জন। 'চাওয়ালা' নরেন্দ্র মোদীর নাকের ডগায় লড়ছেন আবার কেটলি চিহ্ন নিয়েই। প্রার্থী হিসেবে রয়েছেন নাথু রাম এমনকী অক্ষয় কুমার-ও।

শনিবার দিল্লি-তে ৭০টি বিধানসভা আসনে ভোটগ্রহণ করা হচ্ছে। মোট ৬৭২ জন প্রার্থীর ভাগ্য নির্ধারিত হচ্ছে আজ। বেশিরাভাগ আসনেই মূল লড়াইটা ত্রিমুখী - আপ, কংগ্রেস এবং বিজেপি-র মধ্যে। তবে, স্বল্প পরিচিত দলগুলি এবং নির্দল প্রার্থীরা দিল্লি বিধানসভা নির্বাচনে আলাদা স্বাদ যোগ করেছে। নির্বাচন-কে ঘিরে বিরক্তিকর রাজনৈতিক কচকচির মধ্যে বেশ কিছু অস্বাভাবিক নাম এবং সমনামীরা রস যোগ করেছে।

আপ প্রার্থী সোম দত্ত-কে নিয়ে প্রচুর বিতর্ক রয়েছে। তার পরেও অরবিন্দ কেজরিওয়ালের দল সদর বাজার আসন থেকে তাঁকে ফের প্রার্থী করেছে। কিন্তু ওই আসনে এবার লড়ছেন তিন-তিনজন সোম দত্ত। আপের পরিচিত সোম দত্ত ছাড়াও রয়েছেন দুই নির্দল প্রার্থী- সোম দত্ত (প্রতীক ব্রাশ) এবং সোমদত্ত (প্রতীক আইসক্রিম)।

কারাওয়াল নগর ও মোস্তাফাদ - দুই বিধানসভা আসন থেকেই নির্বাচনে লড়ছেন ইমরান খান। না পাক প্রধানমন্ত্রী দিল্লির ভোটে তাঁর ভাগ্য পরীক্ষা করতে আসেননি। আসলে টিপু সুলতান পার্টির টিকিটে ভোটে লড়ছেন দুই খান- ইমরান খান ও ইমরান মাতলুব খান। প্রথমজন কারাওয়াল নগরের প্রার্থী, দ্বিতীয়জন মোস্তাফাদ-এর। তাঁদের দলের প্রতীক, কেটলি।

ইদানিং নাথুরাম গডসে-কে প্রতুর আলোচনা হচ্ছে। বিজেপি সাংসদ প্রজ্ঞা সিং ঠাকুর দারুণ গডসে ভক্ত। সংসদেও গান্ধী-হত্যাকারীকে তিনি দেশপ্রেমিক বলেছেন। তা সেই নাথু রাম-ও লড়ছেন দিল্লির ভোটে। তবে শেষে গডসে নেই, এই যা। উজিরপুর আসন থেকে তাঁকে প্রার্থী করেছে সিপিআই (এম)।

আবার অক্ষয় কুমার লড়ছেন কোন্ডলি আসন থেকে। বলি তারকা নন, ইনি জনৈক নির্দল প্রার্থী, প্রতীক হুইশল। নরেন্দ্র মোদী-কে সংক্ষেপে নমো বলা হয়ে থাকে। সরাসরি নমো না হলেও নমাহা নামে এক প্রার্থী লড়ছেন লক্ষ্মী নগর আসনে, এলজেপির টিকিটে।

নির্বাচনী প্রচার পর্বে 'বিকাশ' নিয়ে প্রচুর কথা হয়েছে। আপকি আপনি পার্টি (পিপলস) মডেল টাউন কেন্দ্রের প্রার্থীর নামই বিকাশ। টর্চ প্রতীকে লড়ছেন তিনি। দিল্লী ক্যান্টনমেন্ট থেকে ব্যাট প্রতীকে লড়ছেন নির্দল প্রার্থী ঈশ্বর।
তবে সবচেয়ে চমকে দেওয়া নাম সম্ভবত শাহদারা কেন্দ্র থেকে লড়া সবসে বড়ি পার্টি (প্রতীক ম্যাচবক্স)-র এক মহিলা প্রার্থীর। অবিশ্বাস্য হলেও এটাই সত্যি, তাঁর নাম বিমলা @বিমলা।