সামনেই অমরনাথ যাত্রা। তার থেকেও বড় কথা এই দিনই কাশ্মীরে পা রাখার কথা স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ-র। তার আগেই উত্তপ্ত হয়ে উঠল কাশ্মীর। কার্যত রণক্ষেত্রে চেহারা নিল গোটা এলাকা।
এবারও অপারেশনের ডেস্টিনেশন সেই পুলওয়ামা।মঙ্গলবার ভোররাতে সূত্র মারফত খবর পেয়ে  সেনাবাহিনী ঘিরে ফেলে ত্রালের নাগবাল এলাকা।  খবর পেতেই এলোপাথাড়ি গুলি ছুঁড়তে থাকে সন্ত্রাসবাদীরা। যৌথ বাহিনী কোন সুযোগই দেয়নি সন্ত্রাসবাদীদের। বেশ কয়েক ঘন্টা গুলির লড়াইয়ে অন্তত তিনজন সন্ত্রাসবাদী আহত। সেনা তাদে ঘিরে রেখেছে। কোনও সেনার মৃত্যুর খবর পাওয়া যায়নি। 

প্রসঙ্গত এদিনই কাশ্মীরে পদার্পণ করছেন নতুন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ।রাজ্যপাল সত্যপাল মালিকের সঙ্গে উচ্চপর্যায়ের নিরাপত্তা বৈঠক হওয়ার কথা তাঁর।  বৈঠকে উঠে আসবে কাশ্মীরে নিরাপত্তা, বিএসএফ, জঙ্গি দমনের মতো কাশ্মীরের নানা অভ্যন্তরীণ বিষয়। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর পদার্পণকে কেন্দ্র করে কাশ্মীরের অশান্তি হতে পারে তা আঁচ করেই বেশ কিছুদিন ধরেই কোনায় কোনায় তল্লাশি চালিয়েছে। সেনা-জঙ্গি লড়াইয়ে খতম হয়েছে কুখ্যাত জঙ্গি সাজ্জাদ ভাট। তার গাড়ি ব্যবহার করা হয়েছিল পুলওয়ামা হামলায়। গত মঙ্গলবার ধরা পড়েছে আরেক জন জঙ্গি মুন্না লহরি। গত ১৪ ফেব্রুয়ারি কাশ্মীর এনকাউন্টারে অন্যতম চক্রী ছিল সে। অস্ত্র তৈরিতে তাঁর জুড়িদার ছিল না গোটা উপত্যকায়। 

প্রসঙ্গত গত একমাসে নয় জন সেনার মৃত্যু হয়েছে কাশ্মীরে।এই বছর কাশ্মীরে  সেনার তরফে মারা হয়েছে মোট ১১৩ জন জঙ্গিকে।পুলওয়ামা কাণ্ডের পরে মারা হয়েছে ৮৫ জনকে। প্রাণ গিয়েছে ২৬ জন সেনারও।  প্রসঙ্গত, সামনের মাসের গোড়াতেই শুরু অমরনাথ যাত্রা। এই হিংসার আবহে সফল ভাবে তীর্থযাত্রীদের জন্যে অমরনাথ যাত্রা পরিকল্পনা করা বড় চ্যালঞ্জ প্রসাশনের কাছে।