লকডাউনের কারণে সরকারি আয় তলানিতে ঠেকেছে। তাই আয় বাড়াতে এবার পেট্রোল আর ডিসেজের অন্তঃশুল্ক বৃদ্ধি করা হয়েছে বলে ঘোষণা করেছে কেন্দ্রীয় সরকার। ডিজেলের অন্তঃশুল্ক ১৩ আর পেট্রোলের অন্তঃশুল্ক ১০ টাকা বৃদ্ধি করা হয়েছে।  বুধবার থেকেই নতুন দাম কার্যকর হবে। তবে এর জন্য খুচরো উপভোক্তাদের বেশি টাকা দিতে হবে না বলেও আশ্বাস দিয়েছে কেন্দ্রীয় সরকার। 

কেন্দ্রীয় সরকারের জারি করা বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, পেট্রোলের অন্তঃশুল্ক ২টা  থেকে বাড়িয়ে ১২ টাকা করা হয়েছে।  আর ডিজেলের ক্ষেত্রে তা ৫ থেকে ৯টা করা হয়েছে। একই সঙ্গে দুটি জ্বালানির রোড সেস লিটার প্রতি ৮ টাকা থেকে বাড়িয়ে ১৮ টাকা করা হয়েছে। গত দুমাসে এই নিয়ে দুবার পেট্রোল ও ডিজেলের জ্বালানির অন্তঃশুল্ক বৃদ্ধি করেছে কেন্দ্রীয় সরকার। বিশ্ব বাজারে তেলের দাম পড়তে পড়তে প্রায় তলানিতে ঠেকেছে। সেই সময় জ্বালানির দাম না কমিয়ে অন্তঃশুল্ক চাপানোয় রীতিমত ক্ষোভ বাড়ছে বিরোধীদের মধ্যে। অনেক আগে থেকেই কংগ্রেস নেতা রাহুল গান্ধি পেট্রোল আর ডিজেলের মূল্যবৃদ্ধি নিয়ে রীতিমত সমালোচনা করেছে কেন্দ্রীয় সরকারের। এবার এই অন্তঃশুল্ক বৃদ্ধিকে কেন্দ্র করেই বিরোধীরা নতুন অস্ত্রে শান দেবে বলেই মনে করছেন রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞরা। 

আরও পড়ুনঃ বিশ্বে করোনা ত্রাসের মধ্যেও চন্দ্র অভিযানের লক্ষ্যে অনড় চিন, সফল উৎক্ষেপন লংমার্চের ...

আরও পড়ুনঃ মাস্ক তৈরির কারখানায় গিয়েও মার্কিন প্রেসিডেন্ট বজায় রাখলেন নিজের জেদ, লকডাউন নিয়েও একই মন্তব্য তাঁর ...

গত ১৪ মার্চই কেন্দ্রীয় সরকার জ্বালালির  এক্সাইজ ডিউটি লিটার প্রতি ৩ টাকা বাড়িয়েছিল। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক সরকারি এক কর্তা বলেছেন পেট্রোল ডিজেলের শুল্ক বাড়িয়ে বেশি রাজস্ব আদায়ের চেষ্টা করছে সরকার। আর সেই টাকা উন্নয়ন ও পরিকাঠামো গড়ে তোলার কাজে খরচ করা হবে।