পরিবারের সঙ্গে কোচির এক জনপ্রিয় শপিংমলে শপিং করতে গিয়ে লাঞ্ছনা ও যৌন নির্যাতনের শিকার হতে হয়েছে বলে অভিযোগ করলেন মলিউড অর্থাৎ মালয়ালম ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রির অন্যতম জনপ্রিয় অভিনেত্রী আন্না বেন। মলের মধ্যে প্রকাশ্যেই অশালীনভাবে দুই ব্যক্তি তাঁর দেহ স্পর্শ করেছে, বলে সোশ্যাল মিডিয়ায় দাবি করেছেন তিনি। গত বৃহস্পতিবার এই ঘটনা ঘটেছে বলে জানিয়েছেন অভিনেত্রী।

সোশ্যাল মিডিয়া পোস্টে ওই অভিনেত্রী জানিয়েছেন কোচির লুলু মলে ঘোরার সময় দুজন পুরুষ অনেকক্ষম ধরেই তাঁর পিছু নিয়েছিলেন। এরপর সুযোগ বুঝে তারা একেবারে অভিনেত্রীর গা ঘেষে হেঁটে যায় এবং যাওয়ার সময় অভিনেত্রীর পিঠে হাত বুলিয়ে যায়। অথচ, মলে সেইরকম ভিড় ছিল না। ঘটনার আকস্মিকতায় অভিনেত্রী তত্ক্ষণাত কোনও প্রতিক্রিয়া জানাতে পারেননি। বরং তাঁর মনে হয়েছিল, হয়তো দুর্ঘটনাক্রমে তাদের হাত লেগে গিয়েছে।

কিন্তু, সামান্য দূরে দাঁড়িয়ে থাকা অভিনেত্রীর বোন, তাঁর ভুল ভাঙান। তিনি অভিনেত্রীকে এসে জানান, ওই দুই ব্যক্তি ইচ্ছাকৃতভাবেই ওই অশালীন ছোঁয়া দিয়েছে। বিষয়টা বুঝে ওই তরুণী অভিনেত্রী ওই দুই ব্যক্তির দিকে এগিয়ে গিয়েছিলেন। কিন্তু, তারা তাঁকে সম্পূর্ণ উপেক্ষা করে অবিলম্বে ওই জায়গা ছেড়ে চলে যায়। অভিনেত্রী মুখে কিছু বলতে না পারলেও, তিনি যে বিষয়টি বুঝতে পেরেছেন, তা তাদেরকে ঠারে ঠারে বুঝিয়ে দেন। কিন্তু, ওই অপরাধ করেও তারা যে কোনও শাস্তি ছাডা়ই পার পেয়ে গেল, এটাই তাঁকে শান্তি দিচ্ছে না বলে জানিয়েছেন ওই অভিনেত্রী।

সোশ্যাল মিডিয়ায় তাঁর তিক্ত অভিজ্ঞতার কথা প্রকাশ করলেও পুলিশে কোনও অভিযোগ জানাননি ওই অভিনেত্রী। তবে, তাঁর পোস্টটি পড়ে এই বিষয়ে একটি সুয়োমোটো মামলা দায়ের করেছে রাজ্য মহিলা কমিশন। শনিবারই অভিনেত্রীর কাছ থেকে এই বিষয়ে তাঁরা আরও প্রমাণ সংগ্রহ করবে।

সোশ্যাল মিডিয়ায় অভিনেত্রী লিখেছেন, বাড়ি থেকে বের হওয়ার পর প্রতি মিনিটে জামাকাপড়, নিচু হওয়া ইত্যাদি বিষয়ে সতর্ক থাকতে থাকতে তিনি ক্লান্ত। আর এটা তাঁর একার নয়, আমাদের সমাজের সব মহিলারই অভিজ্ঞতা। এই সবটাই কিছু অসুস্থ পুরুষদের কারণে। তারাই মহিলাদের নিরাপত্তা স্বাচ্ছন্দ, নারীত্বের আনন্দ কেড়ে নিচ্ছে। এই পুরুষদের বরকে স্থান হবে বলে জানিয়েছেন তিনি।