প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর ফিট ইন্ডিয়া মুভমেন্টের কথা মাথায় রেখে এক অভিনব উদ্যোগ নিল ভারতীয় রেল বিভাগ। শারীরিকভাবে ফিট হলেই বিনামূল্যে মিলতে পারে টিকিট। দিল্লির আনন্দ বিহার রেলওয়ে স্টেশনে একটি যন্ত্র বসিয়েছে ভারতীয় রেল। তার সামনে ৩০টি স্কোয়াট করতে পারলে বা বৈঠক দিতে পারলেই বিনামূল্যে প্ল্যাটফর্ম টিকিট দেওয়া হচ্ছে। অর্থাৎ একই সঙ্গে ব্যায়াম-ও করা হবে, আবার পকেটও বাঁচবে।

শুক্রবার, রেলমন্ত্রী পীযূষ গয়াল সোশ্যাল মিডিয়ায় আনন্দ বিহার রেলস্টেশনে বসানো ওই ফিটনেস যন্ত্রের একটি ভিডিও পোস্ট করেছেন। সেখানে নয়াদিল্লির ওই রেলস্টেশনে যন্ত্রটির সামনে এক কিশোর-কে স্কোয়াট করতে দেখা গিয়েছে। এইভাবে ৩০টি স্কোয়াট করতে পারলেই বিনামূল্যে মিলবে প্ল্যাটফর্ম টিকিট। ১০ ​​টাকা মূল্যের এই টিকিটে ট্রেনে চড়া না গেলেও রেলের প্ল্যাটফর্ম ব্যবহার করতে এই টিকিট লাগে। একটি টিকিট দুই ঘন্টা পর্যন্ত কার্যকর থাকে।

আরও পড়ুন - ৩০বার ডনবৈঠক দিলেই বিনামূল্যে টিকিট, অভিনব উদ্যোগ নিল ভারতীয় রেল, দেখুন ভিডিও

আরও পড়ুন ৃ- গ্রামের বুক চিরে ছুটবে রেলগাড়ি, ভিটেমাটি হারানোর আতঙ্কে মণিপুরx

আরও পড়ুন - নির্বীজকরণের জন্য পুরুষ চাই, না হলে স্বাস্থ্যকর্মীদের চাকরি হারানোর ফতোয়া

পীযূষ গয়াল ভিডিওটি শেয়ার করে সঙ্গের ক্যাপশনে লিখেছেন, 'অর্থ বাঁচানোর পাশাপাশি ফিটনেস অনুশীলন'। তিনি জানান ভারতীয়দের ফিটনেস চর্চাকে উৎসাহিত করতেই দিল্লির আনন্দ বিহার রেলস্টেশনে পরীক্ষামূলকভাবে এই যন্ত্র বসানো হয়েছে। গত বছর জাতীয় ক্রীড়া দিবসে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ভারতীয়দের দৈনন্দিন জীবনে শারীরিক ক্রিয়াকলাপ এবং খেলাধুলাকে যুক্ত করে সুস্থ থাকতে উৎসাহিত করার লক্ষ্যে 'ফিট ইন্ডিয়া' আন্দোলন শুরু করেছিলেন। স্বাভাবিকভাবেই এই ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছে। সকলেই রেলমন্ত্রকের এই অনন্য উদ্যোগের প্রশংসা করেছেন।

তবে, ফিটনেস চর্চাকে উৎসাহ দিতে ভারতেই এইরকম উদ্যোগ প্রথম নেওয়া হল, তা নয়। রাশিয়া এবং মেক্সিকোর রেল স্টেশনগুলিতে 'স্কোয়াট অ্যান্ড রাইড' নামে একটি যন্ত্র দেখা যায়। সেখানেও যন্ত্রের সামনে নির্দিষ্ট সংখ্যক স্কোয়াট করতে পারলে বিনামূল্যে ট্রেন টিকিট পাওয়া যায়।