বুধবার ছত্তিশগড়ের বস্তার ডিভিশনের নারায়ণপুর জেলায় নিজেদের মধ্যেই গুলি ছোড়াছুড়িতে ইন্দো-তিব্বত সীমান্ত পুলিশের (আইটিবিপি) ৬ জওয়ান নিহত ও আরও ২ জন আহত হয়েছেন। ছত্তিশগড় পুলিশের ডিজি ডিএম অবস্তি জানিয়েছেন, বুধবার সকালে নায়ারণপুরের আইটিবিপি-র শিবিরে নিজেদের মধ্যে কোনও একটি বিষয় নিয়ে তীব্র তর্কবিতর্ক শুরু হয়। সেখান থেকেই এই কাণ্ড ঘটে।

ঘটনাটি ঘটে সকাল সাড়ে নটা নাগাদ। যে কনস্টেবল গুলি চালান তাঁর নাম মাসুদুল রহমান। তাঁর বাড়ি পশ্চিমবঙ্গের নদিয়া জেলায়। তিনি ছাড়াও মৃত জওয়ানদের মধ্যে আরও দুই বাঙালি রয়েছেন - বর্ধমানের সুরজিৎ সরকার ও পুরুলিয়ার বিশ্বরূপ মাহাতো। এছাড়া মৃত্যু হয়েছে হেড কনস্টেবল হিমাচলপ্রদেশের মহেন্দ্র সিং, হেড কনস্টেবল পঞ্জাবের দলজিৎ সিং ও কেরলের বিজেস-এর। সবশেষে মাসুদুল নিজেকেও গুলি চালিয়ে শেষ করে দেয়।

ডিজিপি অবস্তি জানান, নারায়নপুরের আইজি ও এসপি ঘটনাস্থলে গিয়েছেন। আহত দুই জওয়ানের নাম এসবি উল্লাস (কেরল), ও সীতারাম দুন (রাজস্থান)। তাদের আকাশপথে রায়পুরে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। সেখানকার এক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে তাঁদের। কিন্তু, ঠিক কী নিয়ে তাদের ঝামেলা বেধেছিল তা জানায়নি পুলিশ।