চিনা সেনার গ্রাফিন পোষাকের মতই ভারতীয় সেনা বাহিনী হাতে পেল আমেরিকার তৈরি চরম শীতের পোষাক। সেনা বাহিনী সূত্রে খবর এই বিশেষ  পোষাকগুলি মূলত পূর্ব লাদাখ সীমান্তে মোতায়েন থাকা সেনাবাহিনীর হাতেই তুলে দেওয়া হবে। এই পোষাকগুলি সাদা আর খুব পুরু। এই বিশেষ পোষাক লাদাখের কনকন ঠান্ডার মোকাবিলা করতে সাহায্য করবে।  সঙ্গে ভারতীয় সেনা হাতে পয়েছে সৌর অ্যাসল্ট রাইফেল। 


ভারতীয় সেনা বাহিনী সূত্রে বলা হয়েছে মঙ্গলবার মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র থেকে চরম শীতের সঙ্গে মোকাবিলা করার জন্য বিশেষ পোশাকের প্রথম ব্যাচটি হাতে পেয়েছে ভারত। সেনা সূত্রের খবর এই বিশেষ পোষাক মজুত করা হচ্ছে। প্রায় ৬০ হাজার পোষাক আগেই ভারতের হাতে ছিল। প্রবল ঠান্ডায় সিয়াচেন আর লাদাখে মোতায়েন থাকা সৈন্যদের এই বিশেষ পোষাক দেওয়া হয়। চলতি বছর ভারতের প্রয়োজন অতিরিক্ত ৩০ হাজার বিশেষ পোষাক।  কারণ চিনা সেনার আগ্রাসন মোকাবিলা করার জন্য শীতকালেও  পূর্ব লাদাখ সেক্টরে প্রকৃত নিয়ন্ত্রণ সীমারেখা এলাকায় সেনা মোতায়েন রাখা হচ্ছে। ইতিমধ্যেই এই এলাকায় প্রায় ৯০ হাজার সেনা মোতায়েন করা হয়েছে। 


সেনা সূত্রে খবর মার্কিন পররাষ্ট্র মন্ত্রী মাইক পম্পেয় ও প্রতিরক্ষা মন্ত্রী মার্ক এসপার দুদিনের সফরে ভারতে এসেছিলেন। লাদাখ সীমান্তে চিনা সেনার আগ্রাসন প্রতিহত করায় ক্ষেত্রে তাঁরা ভারতের পাশে থাকার বার্তা দিয়েছিলেন। পাশাপাশি তাঁরা দুই দেশের প্রতিরক্ষা ও নিরাপত্তা সম্পর্কেও গুরুপূর্ণ আলোচনা করেছিলেন। একে অপরের পাশে থাকার বার্তা দিয়েছিলেন। তাৎপর্যপূর্ণ হল তাঁরা দেশে ফেরার পরই এই বিশেষ পোষাক সরবরাহ করা হয়েছে। গত মে মাস থেকেই লাদাখের প্রকৃত নিয়ন্ত্রণ সীমারেখা এলাকায় লাল চোখ দেখাচ্ছে চিনা সেনা। পাল্টা ভারতীয় অখণ্ডতা আর সার্বভৌমত্ব বজায় রাখতে মরিয়া হয়ে রয়েছে ভারতীয় সেনা জওয়ানরা। আর সেই কারণে শীতকালে কনকনে ঠান্ডা, তুষার ঝড় সবকিছু উপেক্ষা করে তাঁরা সীমান্তে মোতায়েন থাকা সিদ্ধান্ত নিয়েছে।