সোমবার, প্রতিরক্ষা বাহিনীর উপ-প্রধানের দায়িত্ব গ্রহণ করলেন লেফটেন্যান্ট জেনারেল চন্ডীপ্রসাদ মোহান্তি। সেনাবাহিনীর চার দশকের বেশি সময় ধরে রয়েছেন লেফটেন্যান্ট জেনারেল সিপি মোহান্তি। সোমবার লেফটেন্যান্ট জেনারেল এসকে সায়নি-র স্থলাভিষিক্ত করা হয় তাঁকে।

দেরাদুনে জাতীয় প্রতিরক্ষা অ্যাকাডেমি থেকে প্রতিরক্ষা বাহিনীতে পা বাড়িয়েছিলেন লেফটেন্যান্ট জেনারেল চন্ডীপ্রসাদ মোহান্তি। তারপর খড়কওয়াসলা এবং দেরাদুনের ভারতীয় সামরিক অ্যাকাডেমি পেরিয়ে ১৯৮২ সালের ১২ জুন রাজপুত রেজিমেন্টে নিযুক্ত হয়েছিলেন লেফটেন্যান্ট জেনারেল মোহান্তি। চার দশকের দীর্ঘ কর্মজীবনে তিনি বিভিন্ন দ্বন্দ্বের মোকাবিলায় এবং বিভিন্ন ভূখণ্ডের নিরাপত্তা প্রদানের অভিজ্ঞতা সংগ্রহ করেছেন তিনি। একসময় তিনি জম্মু ও কাশ্মীরে এবং পরে উত্তর-পূর্ব ভারতে নিয়ন্ত্রণরেখা এলাকায় তিনি ব্যাটালিয়নের নেতৃত্বও দিয়েছেন।

শুধু তাই নয়, লেফটেন্যান্ট জেনারেল সিপি মোহান্তি-র টুপির নিচে এমন কীর্তি রয়েছে, যা সেনা অফিসারদের জীবনে বিরল। কর্মজীবনে দু-দুটি ব্রিগেডের কমান্ড দিয়েছেন তিনি। প্রথমে প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখায় ভারতীয় বাহিনীকে, এবং পরে গণপ্রজাতান্ত্রিক কঙ্গোয় রাষ্ট্রসংঘের বহুজাতিক ব্রিগেডকে। পরে তিনি রঙ্গিয়ায় নাশকতা বিরোধী অভিযানে এবং সিকিমে ত্রিশক্তি কর্পস-কেও নেতৃত্ব দেন। সামরিক অভিযানেপর নেতৃত্ব দেওয়ার পাশাপাশি এই লেফটেন্যান্ট জেনারেলের দুটি প্রশাসনিক কাঠামো কমান্ড করারও অভিজ্ঞতা রয়েছে - মেজর জেনারেল হিসাবে যোধপুর সাব অঞ্চল এবং লেফটেন্যান্ট জেনারেল হিসাবে উত্তর ভারত অঞ্চল।