ভারতীয় জনতা পার্টিতে (BJP)-তে এবার যোগ দিচ্ছেন 'মেট্রোম্যান' ই শ্রীধরণ। বাংলার মতো আগামী এপ্রিল ও মে মাসে দক্ষিণ ভারতের কেরলেও বিধানসভা নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। তার আগে দলের শক্তিবৃদ্ধি করতে আগামী ২১ ফেব্রুয়ারি থেকে দক্ষিণ ভারতের এই রাজ্যে বিজেপি 'বিজয় যাত্রা' কর্মসূচি করছে। সেই যাত্রার সময়ই ই শ্রীধরণ এবং বিভিন্ন মহলের অত্যন্ত প্রভাবশালী ব্যক্তিবর্গ গেরুয়া শিবিরে যোগ দেবেন বলে জানিয়েছেন কেরলের বিজেপি সভাপতি কে সুরেন্দ্রন।

২০১১ সালে দিল্লি মেট্রোর প্রধান হিসাবে অবসর গ্রহণ করেছিলেন শ্রীধরণ। তবে কোঙ্কন রেলপথ নির্মাণে নেতৃত্ব দিয়েছিলেন তিনিই। এছাড়া পেশায় এই ইঞ্জিনিয়ার শ্রীধরণ জয়পুর, লখনউ ও কোচির অন্যান্য মেট্রো প্রকল্পের সঙ্গেও জড়িত ছিলেন। ভারতে গণ পরিবহণ ব্যবস্থা তাঁর হাত ধরেই পাল্টে গিয়েছে বলে মনে করা হয় এবং এই জন্যই তিনি 'মেট্রোম্যান' নামে খ্য়াত। ২০০১ সালে তাঁর কাজের স্বীকৃতি হিসাবে তাঁকে পদ্মশ্রী এবং ২০০৮ সালে পদ্মবিভূষণ সম্মানে ভূষিত করা হয়েছে।

বিজেপিতে যোগদানের বিষয়ে শ্রীধরন জানিয়েছেন, নরেন্দ্র মোদীকেই তিনি ভারতের সবচেয়ে প্রতিশ্রুতিমান প্রধানমন্ত্রী বলে মনে করেন। মোদীর সঙ্গে ঘনিষ্ঠভাবে তিনি কাজও করেছেন। যা থেকেই তিনি বিজেপি দলে যোগ দেওয়ার অনুপ্রেরণা পেয়েছেন। তবে বিজেপিতে যোগ দিলেও নির্বাচনে লড়ার বিষয়ে নিশ্চিতভাবে কিছু জানাননি তিনি। এই প্রসঙ্গে তাঁর বকত্তব্য নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করার বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেবে দল।

কেরলে বিজেপির 'বিজয় যাত্রা' শুরু হবে কাসারগড় থেকে। উদ্বোধন করবেন উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ। মার্চের প্রথম সপ্তাহে তা পৌঁছবে তিরুঅনন্তপুরমে। সেখানেই সমাপ্ত হবে এই যাত্রা।