এবার আমার মেয়ের আত্মা শান্তি পেল। এনকাউন্টারে চার ধর্ষকের মৃত্যুর খবর পাওয়ার পর এই প্রতিক্রিয়াই দিলেন দিশার মা। তেলেঙ্গানা সরকার ও পুলিশকে ধন্যবাদ জালানেন দিশার বাবা। ধন্যবাদ জানিয়েছেন আরও একজন। নির্ভয়ার মা আশাদেবী। 

আমার ক্ষতে মলম পড়ল। হায়দরাবাদ পশু চিকিৎসক ধর্ষণ-খুনে চার অভিযুক্তদের এনকাউন্টারে মৃত্যু হওয়ার ঘটনাকে এভাবেই ব্যাখা করেছেন নির্ভয়ার মা। 

 

২০১২ সালে নৃশংস ভাবে ধর্ষণ করা হয়েছিল নির্ভয়াকে। সেই ঘটনার বিচার চলেছে ৭ বছর ধরে। আশাদেবী বলেন, "অন্তত একজন কন্যা সুবিচার পেল। আমি পুলিশকে ধন্যবাদ জানাব। অপরাধীদের শাস্তির দাবিতে আমি ৭ বছর ধরে চিৎকার করে চলেছি। প্রয়োজনে সমাজের স্বার্থে আইন ভাঙুন। আবারও একটা ১৩ ডিসেম্বর আসছে। আবার আদলতে যেতে হবে। এখনও আদালতে চক্কর কেটে চলেছি।"

হায়দারবাদে নির্যাতিতা পশু চিকিৎসকের পরিবারের প্রতি সমাবেদনা জানিয়ে আশাদেবী বলেন, "তাঁর বাবা-মা নিশ্চয়ই এবার স্বস্তি পাবেন। তাঁদের কন্যা সুবিচার পেল। এমন নৃশংস ঘটনা ঘটানোর আগে অপরাধীরা নিশ্চয়ই এবার ভাববেন, কিছুটা হলেও ভয় জন্মাবে।"