Asianet News BanglaAsianet News Bangla

ভারতের সঙ্গে তুলনা করে পাকিস্তানকে সার্টিফিকেট রাহুল গান্ধীর, আবারও বিজেপিকে নিশানা

  • আবারও কেন্দ্রের সমালোচনায় সরব 
  • সরব হলেন কংগ্রেস নেতা রাহুল গান্ধী
  • পাকিস্তানকে সার্টিফিকেটর রাহুলের 
  • আফগানিস্তানেরও প্রশংসা করেন তিনি
     
Pakistan handled better coronavirus situation than India says Rahul Gandhi on imf report bsm
Author
Kolkata, First Published Oct 16, 2020, 12:52 PM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

আইএফএফ-এর রিপোর্ট নিয়ে এবার মুখ খুললেন কংগ্রেস নেতা রাহুল গান্ধী। বুধবারই ভারতের জিডিপি নিয়ে আশঙ্কা প্রকাশ করেছে ইন্টারন্যাশানাল মনিটারি ফান্ড। রিপোর্টে বলা হয়েছে ভারতের জিডিপির হার ১০.৩ শতাংশ সঙ্কুচিত হতে পারে। আর রিপোর্টেই বলা হয়েছে ভারতের থেকে মাথাপিছু আয় বেড়েছে বাংলাদেশের সধারণ মানুষের। আইএমএফ-এর এই রিপোর্ট নিয়ে শুক্রবার সকালে সোশ্যাল মিডিয়ায় বার্তা দিলেন রাহুল গান্ধী। রীতিমত কটাক্ষের সুরেই তিনি বলেন বিজেপি সরকারে আরও একটা সাফল্য। 

এদিন সোশ্যাল মিডিয়ায় প্রতিবেশী দেশগুলির জিডিপি নিয়ে একটি গ্রাফ চার্ট প্রকাশ করেন তিনি। সেখানে দেখা যাচ্ছে পাকিস্তান আর আফগানিস্তানের জিডিপি সংকোচনের হার ভারতের থেকে অনেকটাই কম। আর সেই ছবির ক্যাপশানে রাহুল লিখেছেন কেন্দ্রের বিজেপি সরকারের আরও একটি সাফল্য। করোনাভাইরাস পরিস্থিতি সমাল দিতে পাকিস্তান আর আফগানিস্তান ভারতের থেকে অনেক ভালো কাজ করেছে। কারণ রাহুল গান্ধী চার্টে দেখিয়েছেন ভারতের অর্থনীতি মাইনাস ১০.৩ শতাংশ সংকোচন হয়েছে । সেখানে পাকিস্তানের অর্থনীতির সংকোচন হয়েছে মাইনাস ০.৪০। আর সন্ত্রাস বিধ্বস্ত আফগানিস্তানে জিডিপির হার মাইনাস ৫। 

মহামারিকালে 'বিষফোঁড়া' বায়ু দূষণ, রাজধানীতে আবারও চালু হতে চলেছে নতুন গাড়ি নীতি .

হাথরসকাণ্ডে আবারও প্রশ্নের মুখে যোগীর পুলিশ, লোপাট ঘটনার সিসিটিভি ফুটেজ ...


দেশে মহামারি শুরুর প্রথম থেকেই রাহুল গান্ধী জিডিপি নিয়ে আশঙ্কা প্রকাশ করেছিলেন। গত ফেব্রুয়ারি মাস থেকে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ নিয়েও তিনি উদ্বেগ প্রকাশ করেছিলেন। তখন তিনি বলেছিলেন দেশের সামনে কঠিন সময় আসছে। পরবর্তীকালে দেশের আর্থিক সমস্যা মেটাতে দেশের মানুষের ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে টাকা দেওয়ার কথাও বলেছিলেন। কিন্তু কেন্দ্রীয় সরকার তাঁর প্রস্তাব মানেনি বলেও অভিযোগ করেন তিনি। যদিও আইএমএফ বলেছে আগামী বছর অর্থাৎ ২০২১ সালের মধ্যে আর্থিক সংকট কিছুটা হলেও কাটিয়ে উঠতে পারবে ভারত। তবে সম্প্রতি সময় দক্ষিণ এশিয়ার দেশগুলির মধ্যে শ্রীলঙ্কার পর সবথেকে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হতে চলছে ভারত। 
 

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios