আয়কর বিভাগ জানিয়েছে, পার্মানেন্ট অ্যাকাউন্ট নম্বর বা প্যান যদি চলতি বছরের ৩১ মার্চের মধ্যে আধার-এর সঙ্গে যুক্ত না করা হয় তবে তা নিষ্ক্রিয় হয়ে যাবে। অর্থাৎ, সেই প্যান কার্ডের আর কোনও মূল্য থাকবে না। ইতিমধ্য়েই প্যান এবং আধার সংযুক্ত করার সময়সীমা বেশ কয়েকবার বাড়ানো হয়েছে। বর্তমান

আয়কর বিভাগ জানিয়েছে, পার্মানেন্ট অ্যাকাউন্ট নম্বর বা প্যান যদি চলতি বছরের ৩১ মার্চের মধ্যে আধার-এর সঙ্গে যুক্ত না করা হয় তবে তা নিষ্ক্রিয় হয়ে যাবে। অর্থাৎ, সেই প্যান কার্ডের আর কোনও মূল্য থাকবে না। ইতিমধ্য়েই প্যান এবং আধার সংযুক্ত করার সময়সীমা বেশ কয়েকবার বাড়ানো হয়েছে। বর্তমান সময়সীমা দেওয়া হয়েছে ২২ শে মার্চ পর্যন্ত।

আয়কর বিভাগ জানিয়েছে, চলতি বছরের ২২ জানুয়ারি পর্যন্ত দেশের মোট ৩০.৭৫ কোটি প্যান কার্ড আধারের সঙ্গে যুক্ত করা হয়েছে। তবে, এখনও ১৭.৫৮ কোটি প্যান আধাররে সঙ্গে যুক্ত করা যায়নি। কেন্দ্রীয় সরকারের ডিরেক্ট ট্যাক্স বোর্ড (সিবিডিটি) জানিয়েছে, যাদের ২০১৭ সালের ১ জুলাই-এর আগে প্যান বরাদ্দ করা হয়েছে, তারা যদি আধার নম্বরটির সঙ্গে প্যান যুক্ত না করেন, তাহলে ওই প্যান-এর আর কোনও মূল্য থাকবে না। ওই বিজ্ঞাপ্তিতে আরও বলা হয়েছে, এভাবে যাদের প্যান নিষ্ক্রিয় হয়ে যাবে, তারা আই-টি আইনের অধীনে প্যান নম্বর সরবরাহ বা উল্লেখ উদ্ধৃতি না করার দায়ে সাস্তি পেতে পারেন।

তবে ৩১ মার্চ-এর পরেও প্যান ও আধার সংযুক্ত করা যাবে। আই-টি বিভাগ জানিয়েছে যেদিন থেকে আধার নম্বর ও স্থায়ী অ্যাকাউন্ট নম্বর সংযুক্ত হবে, ওইদিন থেকে ফের প্যান সক্রিয় বা কার্যকর হবে। আয়কর আইন অনুযায়ী ১ জুলাই, ২০১৭-এর আগে প্যান পাওয়া এবং আধার পাওয়া প্রত্যেককে অবশ্যই তার আধার নম্বরটি কর বিভাগের সঙ্গে যুক্ত করতে হবে। সুপ্রিম কোর্ট ২০১৮ সালের সেপ্টেম্বরে আধারকে সাংবিধানিকভাবে বৈধ বলে ঘোষণা করে এবং জানায় আয়কর রিটার্ন দাখিল ও প্যান কার্ড বরাদ্দের ক্ষেত্রে এই ১২ সংখ্যার বায়োমেট্রিক আইডি থাকা বাধ্যতামূলক।