বিশ্ব শান্তি আর উন্নয়নের জন্য আমাদের একসঙ্গে এগিয়ে যেতে হবে। এমনই বার্তা দিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। সোমবার সকালে ভারত-জাপান ষষ্ঠ সম্বাদ সম্মেলনের প্রধান বক্তা হিসেবে অংশ গ্রহণ করেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। তিনি বলেন অতীতে দেখাগেছে মানবিকতা ও সহযোগিতার পরবর্তে দ্বন্দ্বের পথ অবলম্বন করা হয়েছে। সাম্রাজ্যবাদ থেকে শুরু করে বিশ্বযুদ্ধ ছিল তারই পরিণতি। অস্ত্রের দৌড় থেকে শুরু করে মহাকাশ দৌড় সবকিছুতেই যুদ্ধের মনোভাব লক্ষ্য করা যায়। এই পথ পরিহার করে একসঙ্গে এগিয়ে যাওয়ার বার্তা দেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। 

তিনি বলেন মানবাতাবাদের ওপরেই আমাদের সকলকে ভরসা রাখতে হবে। আমাদের আজকের ক্রিয়াকলাপগুলি আগামী দিনের আলোচনার বিষয়বস্তু হয়ে যাবে। তিনি আরও বলেন আমাদের অস্তিত্ব বজায় রাখার জন্য প্রকৃতির সঙ্গে সহবস্থান করে চলতে হবে। আগামী প্রজন্মের জন্য বিশ্বকে তৈরি করে রেখে যেতে হবে বলেও তিনি মন্তব্য করেন। আধুনিকতার সঙ্গে ঐতিহ্যের দিকেও গুরুত্ব দিতে হবে। আর সেই কারণেই তরুণ প্রজন্মকে আলোচনা ও বিতর্কের জন্য উৎসাহিত করতে হবে। পাশাপাশি সমসাময়িক চ্যালেঞ্জগুলির মুখোমুখি হওয়ার মত শক্তি আগামী প্রজন্মের রয়েছে বলেও দাবি করেন তিনি। 

ভারত-জাপান সম্বাদ সম্মেলনের আয়োজকদের সাধুবাদ জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। তিনি বলেন এটি জাতীয় আলোচনাসভা ভগবান বুদ্ধের আদর্শ ও ধারনাগুলিকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার কাজে সাহায্য করবে। একই সঙ্গে তিনি একটি গ্রন্থাগার তৈরির প্রস্তাব দিয়েছেন। তিনি বলেছেন বৌদ্ধ সাহিত্য ও ধর্মগ্রন্থ সংরক্ষণ করার পাশাপাশি গবেষণা আর আলোচনার একটি ক্ষেত্রও তৈরি হবে সেখানে। পাশাপাশি সাহিত্য চর্চার ক্ষেত্র হিসেবেই জায়গাটি প্রসস্থ হবে। প্রথম সম্বাদ সম্মেলন হয়েছিল ২০১৫ সালে নতুন দিল্লির বুদ্ধগয়ায়।