স্বাধীন দিবসে লালকেল্লায় বক্তব্য রাখার সময়েই বড় ঘোষণা করলেন নরেন্দ্র মোদী। মোদী এদিন একাধিকবার নতুন ভারত গড়ার বার্তা দিয়েছেন। কিন্তু স্বাধীনতা দিবসেই জানিয়ে দিলেন প্রতিরক্ষা মন্ত্রক নিয়ে নতুন কিছু পরিকল্পনা। 

প্রধানমন্ত্রী এদিন জানান, দেশের সুরক্ষার জন্য ও সন্ত্রাসবাদ রুখতে প্রতিরক্ষা আরও জোরদার করা হবে। এদিন প্রতিরক্ষা মন্ত্রকে একটি নতুন পদ চিফ অফ ডিফেন্স স্টাফ বা সিডিএস-এর কথা ঘোষণা করেন তিনি। সেনা বাহিনী, নৌসেনা ও বায়ুসেনার প্রধান ও বিশেষ আধিকারিকদের নিয়ে একটি বিশেষ দল গড়ে তোলা হবে এদিন। এই দলের শীর্ষেই থাকবেন চিফ অফ ডিফেন্স। এই পদটির অস্তিত্ব রয়েছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সেনাবাহিনীতে। ভারতে প্রথম এই পদটি তৈরির প্রস্তাব রেখেছিলেন বিজেপি সাংসদ রাজীব চন্দ্রশেখর। 

রাজীব চন্দ্রশেখর যখন এই প্রস্তাব রেখেছিলেন তখন প্রতিরক্ষা মন্ত্রী ছিলেন শ্রী এ কে অ্যান্টনি। কংগ্রেস সরকার থাকাকালীন এই প্রস্তাব রেখেছিলেন বিজেপি রাজনীতিক তথা উদ্যোগপতি রাজীব। সেই প্রস্তাব অবশেষে কার্যকর হল আজ ১৫ অগাস্টে। 

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিরক্ষায় এই পদের অস্তিত্ব রয়েছে। সেনাবাহিনীর একাধিক আধিকারিকদের নিয়ে একটি দল রয়েছে। সেই দলের শীর্সেই রয়েছেন সিডিএস। এবার ভারতের প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা আরও মজবুত করতে নরেন্দ্র মোদীও এই পদ নিয়ে এলেন।