শুক্রবার দিল্লির এক আদালতে এক একবছরের পুরনো ধর্ষণ মামলায় জবানবন্দি দিলেন এক নির্যাতিতা। কিন্তু তার একদিন আগেই অর্থাৎ বৃহস্পতিবার তাঁর বাড়িতে পোস্টার দিয়ে হুমকি দেওয়া হল, জবানবন্দি দিলে উন্নাও-এর নির্যাতিতার থেকেও খারাপ অবস্থা করা হবে। নির্যাতিতার কাছ থেকে অভিযোগ পেয়ে অবশ্য উত্তরপ্রদেশ পুলিশ বাঘপত জেলা থেকে বৃহস্পতিবারই ধর্ষণের ঘটনায় মূল অভিযুক্তকে গ্রেফতার করে।
 
জানা গিয়েছে, দিল্লির মুখার্জিনগরে গতবছর ধর্ষণের শিকার হয়েছিলেন ওই তরুণী। মূল অভিযুক্ত সোহরান সিং তাঁর গ্রাম, বিজরোল-এরই বাসিন্দা। সোহরান ওই তরুণীকে তাঁর এক বন্ধুর বাড়িতে নিয়ে গিয়ে ঠান্ডা পানীয়তে মাদক মিশিয়ে খাইয়ে দেয়। তারপর অচৈতন্য অবস্থায় তরুণীকে ধর্ষণ করা হয়। ঘটনার একটি ভিডিও বানিয়ে পরে তরুণীকে ব্ল্যাকমেইল করে ফের ধর্ষণ করে সোহরান, বলে অভিযোগ।

পুলিশ সুপার প্রতাপ গোপেন্দ্র জানিয়েছেন, সোহরান সিং-কে এর আগে গ্রেফতার করেছিল দিল্লি পুলিশ। বুধবারই জামিনে মুক্ত হয় সে। আর তারপরই ওই তরুণীর বাড়ির বাইরে 'উন্নাও-এর থেকে খারাপ অবস্থা' করার হুমকি দিয়ে পোস্টার পড়ে। পুলিশে খবর গেলে বাদৌত থেকে সোহরান-কে বৃহস্পতিবার রাতে ফের একবার গ্রেফতার করে পুলিশ। পোস্টারগুলি নিয়ে তে তদন্তের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। অভিযুক্ত সোহরান সিং-এর অবশ্য দাবি, তাঁকে ফাঁসানো হয়েছে। গ্রামের তাঁর কয়েকজন শত্রু তাঁর দিকে সন্দেহের আঙুল তোলার জন্যই ওই পোস্টার লাগিয়েছে।