কর্নাটকের দক্ষিণ কন্নড় জেলার এক কলেজ ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। যদিও মনে করা হচ্ছে ধর্ষণের ঘটনাটি ঘটেছে গত ফেব্রুয়ারি বা মার্চ মাসে। কিন্তু সেই ঘটনার কথা জানা গেল এতদিন পর। সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হওয়া একটি ভিডিও প্রকাশ্যে আসতেই ধর্ষণের বিষয়টি প্রকাশ্যে আসে।

আর এই ঘটনার জেরেই পাঁচ যুবককে গ্রেফতার করা হয়েছে বলে খবর। গুরুনন্দন, সুনীল, প্রক্যাথ, কিষাণ এবং প্রজ্জ্বল নামে চার অভিযুক্তকে গ্রেফতার করে পুলিশ। জানা গিয়েছে ওই পাঁচ অভিযুক্তই সেখানকার বিবেকানন্দ কলেজের পড়ুয়া। তাঁদের বিরুদ্ধে ভারতীয় দণ্ডবিধি ৩৪১, এবং ৩৭৬(ডি)-(গণধর্ষণ) ধারায় মামলা রুজু করা হয়েছে। সূত্রের খবর  আক্রান্ত যুবতী উপজাতি সম্প্রদায়ভুক্ত এবং স্থানীয় গ্রাম পঞ্চায়েতের সদস্যের মেয়ে। 

পুলিশের তরফ থেকে জানা গিয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হওয়া ওই ভিডিও দেখেই অপরাধীদের চিহ্ণিত করে পুলিশ। পুলিশ সূত্রে খবর, ওই যুবতী আর অভিযুক্তরা একই কলেজের পড়ুয়া। জানা গিয়েছে, ওই পাঁচ ছাত্র নিজেদের গাড়িতে করে একটি জঙ্গলে নিয়ে গিয়ে তাকে ধর্ষণ করেছে এবং গোটা বিষয়টি ফোনে ভিডিও করে রেখেছিল। তারা ওই তরুণীকে ভয় দেখায় য়ে, এই ঘটনার কথা কাউকে জানালে সেই ভিডিও তারা সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল করে দেবে। এরপর ভিডিওটি ভাইরাল হতে প্রশাসনিক তৎপরতায় অভিযুক্তদের গ্রেফতার করে পুলিশ।