লোকসভা নির্বাচনে নিরঙ্কুশ জয়ের পর আগামী বৃহস্পতিবার অনুষ্ঠিত হতে চলেছে মোদীর শপথ-গ্রহণ অনুষ্ঠান। রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ-এর সভাপতিত্বে, বিভিন্ন মন্ত্রীদের উপস্থিতিতে বৃহস্পতিবার রাষ্ট্রপতি ভবনে সন্ধে ৭টায় অনুষ্ঠিত হতে চলেছে মোদীর শপথ-গ্রহণ অনুষ্ঠান।

ইতিমধ্যেই বাংলাদেশ, শ্রীলঙ্কা, মায়ানমার, কিরগীজস্তান-এর রাষ্ট্রপতিরা জানিয়েছেন যে, তাঁরা মোদীর শপথগ্রহণ অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকবেন। ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের তরফে জানে গিয়েছে, নেপাল, মরিশাস ও ভুটানের প্রধানমন্ত্রীদের পাশাপাশি শপথ-গ্রহণ অনুষ্ঠান উপস্থিত থাকবে থাইল্যান্ডের বিশেষ রাষ্ট্রদূতরা। সূত্রের খবর, বিমসটেকের তথা বে অব বেঙ্গল ইনিশিয়েটিভ ফর মাল্টি সেক্টরাল টেকনিকাল অ্যান্ড ইকোনমিক কোঅপারেশন-এর প্রতিনিধিদেরও আমন্ত্রণ জানানো হবে। প্রসঙ্গত, বিমসটেক দেশগুলির মধ্যে রয়েছে বাংলাদেশ, নেপাল, ভুটান, মায়ানমার, শ্রীলঙ্কা এবং থাইল্যান্ড। 

এছাড়াও বাংলাদেশের রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ, কিরগিজ রিপাবলিকের প্রেসিডেন্ট সুরনওবে জিনবেকভ, মায়ানমারের রাষ্ট্রপতি ইউ উইন মিন্ট, নেপালের প্রধানমন্ত্রী কে পি শর্মা ওলি, মরিশাসের প্রধানমন্ত্রী প্রবিন্দর কুমার জুগুনথ এবং থাইল্যান্ডের রাষ্ট্রদূত গ্রিসদা বুনরা- প্রমুখ মাননীয় অতিথিবর্গের উপস্থিতিতে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর শপথ-গ্রহণ অনুষ্ঠানে যে চাঁদের হাট বসতে চলেছে একথা বলাই যায়।