মঙ্গলবার সন্ধ্যায় কেঁপে উঠল রাজধানী দিল্লির মাটি। কম্পন অনুভূত হয় উত্তরাখণ্ড, উত্তরপ্রদেশ-সহ উত্তর ভারতের বেশ কিছু অংশে। ইউরোপিয়ান-মেডিটেরিয়ান সিসমোলজিকাল সেন্টারের তথ্য অনুযায়ী রিখটার স্কেলে ৫.৩ মাত্রার এই ভূমিকম্পের কেন্দ্র ছিল নেপালে, মাটি থেকে ১৪ কিলোমিটার নিচে। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের জিওলজিকাল সার্ভে জানিয়েছে, ভূমিকম্পের এপিসেন্টার ছিল ভারত-নেপাল সীমান্তের খাপতাদ জাতীয় উদ্যানে।

এদিন সন্ধ্যা ৭টা নাগাদ এই ভূমিকম্প হয়। এখনও কোনও হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি। ২০১৫ সালের এপ্রিল মাসে এক ভায়াবহ মাত্রার ভূমিকম্পের কবলে পড়েছিল নেপাল। রিখটার সেই ভূকম্পনের মাত্রা ছিল ৭.৮। তার পরের কয়েকদিন আফটার শকে বারবার কেঁপে উঠেছিল নেপালের মাটি। সবমিলিয়ে প্রায় ৯০০০ লোকের প্রাণহানি হয়েছিল এবং ২০,০০০ মানুষ আহত হয়েছিলেন। ভেঙে গিয়েছিল বহু প্রাচীন সৌধ। সম্পত্তির ক্ষতি হয়েছিল কয়েকশ' কোটি টাকার।

মার্কিন জিওলজিকাল সার্ভের রিপোর্ট অনুযায়ী প্রতি বছরই বিশ্বের কোনও না কোনও জায়গায় রিখটার স্কেলে ৮ বা তারও বেশি মাত্রার ভূমিকম্প হয়।