কেউটে সাপের বিষের থেকেও বিষাক্ত কিছু হয়? হ্যাঁ হয়। আর তা হল প্লাস্টিক। যা হজম হল না স্বয়ং কেউটে সাপেরই।

সম্প্রতি এক কেউটে সাপের প্লাস্টিকের বোতল গিলে ফেলার একটি ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করেন ইন্ডিয়ান ফরেস্ট সার্ভিসের কর্মী প্রবীণ কাসওয়ান। সঙ্গে লেখেন, 'কীভাবে একবার ব্যবহারযোগ্য প্লাস্টিকের বোতল বন্যপ্রাণ এবং অন্যান্য প্রজাতির উপর প্রভাব ফেলে দেখুন।'

ওই ভিডিওটি অবশ্য দুই বছরের পুরনো। ভিডিও-তে দেখা গিয়েছে, একটি কেউটে সাপ একটা বড় কিছু গিলে ফেলে ছটফট করছে। না পারছে গিলতে না পারছে ফেলতে। আর এক সাপুড়ে, একটি লাঠি হাতে তার পাশে দাঁড়িয়ে। মাঝে মাঝে লাঠির আগাটা কেউটেটির গায়ে বুলিয়ে তাঁকে শান্ত করারও চেষ্টা করছেন তিনি।

অনেক সময়ই দেখা যায় বেশ বড় আকারের কোনও প্রাণীকে গিলে নিলে অনেক সময় সাপের এরকম অবস্থা হয়। কিন্তু ক্রমে সেই প্রাণীর দেহ সে হজম করে নেয়। কিন্তু এই ক্ষেত্রে তা হয়নি। অবশেষে অনেক চেষ্টার পর সাপটি পেটের সেই জিনিসটি উগরে ফেললে দেখা যায় সেটি একটি ৫০০ মিলিলিটারের ঠান্ডা পানিয়ের বোতল।

ভিডিওটি দুই বছর আগে গোয়ায় তোলা। একটি ময়লার পাত্র থেকে খাবার সংগ্রহ করতে গিয়ে বোতলটি গিলে ফেলেছিল কেউটি সাপটি। তার অবস্থা দেখে আশপাশের মানুষই স্থানীয় সাপুড়ে গৌতম ভগত-কে খবর দিয়েছিলেন। তিনিই এসে সাপটিকে বোতলটি উগরাতে সাহায্য করেছিলেন।

গত বছর স্বাধীনতা দিবসের দিনই প্রধানমন্ত্রী মোদী প্লাস্টিক মুক্ত বারত গড়ার ডাক দিয়েছিলেন। ভিডিওটি পুরনো বলেও চোখে আঙুল দিয়ে দেখিয়ে দিচ্ছে প্লাস্টিকের বিপদ। কাজেই যত্রতত্র প্লাস্টিকের বোতল বা অন্যান্য সামগ্রি ফেলার বিষয়ে সকলেরই সতর্ক হওয়া দরকার।