ফের ইরাকের মার্কিন বিমান বাহিনীর ঘাঁটিতে রকেট হামলা হল। রবিবার ইরাকের সেনাবাহিনী জানিয়েছে, বাগদাদের উত্তরে ইরাকি বায়ুসেনার আল-বালাদ বিমানবন্দরে বৃষ্টির মতো আটটি রকেট আছড়ে পড়ে। এই ঘাঁটিতেই মার্কিন বায়ুসেনা বাহিনী থাকে। কিন্তু, হামলায়  এদিন চার স্থানীয় সেনা আহত হওয়া ছাড়া বিশেষ ক্ষয়ক্ষটি হয়নি বলে দাবি করেছে ইরাকি সেনাবাহিনী।

ইরাকি সেনার ওই বিবৃতিতে আরও বলা হয়েছে, আটটি রকেটই ছিল কাত্যুশা ধরণের। রাশিয়ায় তৈরি এই ক্ষেপণাস্ত্রগুলি ইরান ব্যবহার করে থাকে। এই হামলায় ইরাকের বিমানবাহিনীর দুই কর্মকর্তা ও দুই কর্মী আহত হয়েছেন।

আমেরিকা থেকে আমদানি করা এফ-১৬ যুদ্ধ বিমানগুলি ইরাক এই আল-বালাদ বিমানবন্দরেই প্রধানত রাখে। এই বায়ুসেনা ঘাঁটিটি-তে দীর্ঘদিন মার্কিন বায়ুসেনা বাহিনীর একটি দল এবং মার্কিন কন্ট্রাক্টররা ছিলেন। কিন্তু গত দুই সপ্তাহ ধরে আমেরিকা ও ইরানের মধ্যে উত্তেজনা এতটাই বেড়েছে, যে তাদের বেশিরভাগকেই ওই ঘাঁটি থেকে সরিয়ে নেওয়া হয়।

ইরাকি সেনার একটি সূত্র জানিয়েছে, প্রায় ৯০ শতাংশ মার্কিন উপদেষ্টা এবং দুটি মার্কিন বিমান রক্ষণাবেক্ষণকারী সংস্থার কর্মীদের ইরানের প্রতিশোধের হুমকির পরই তাজি এবং ইর্বিল-এ সরিয়ে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। ফলে এদিন রকেট হামলার সময় আল-বালাদ বিমানবন্দরে ১৫ জনের মতো মার্কিন সেনা ছিলেন। মার্কিন যুদ্ধবিমানও ছিল না একটিও।