রসায়নে নোবেল পুরষ্কার পেলেন দুই মহিলা মার্কিন আর ফরাসি বিজ্ঞানী। বুধবার ঘোষণা করা হয়ে ফান্সের এমানুয়েল চার্পেনিয়ার আর মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের জেনিফার দৌদনার নাম।  জিনোম সম্পাদনের একটি পদ্ধতি আবিষ্কারের জন্যই তাঁদের বিশেষ সম্মানে ভূষিত করা হচ্ছে বলে জানান হয়েছে। নতুন এই প্রযুক্তিটি জীবন বিজ্ঞানের ওপর বিশেষ প্রভাব ফেলবে। ক্যান্সার থেরাপিকে আরও এগিয়ে নিয়ে যাবে। পাশাপাশি উত্তরাধিকার সূত্রে প্রাপ্ত রোগগুলি নিরাময় করা যেতে পারে বলেও মনে করা হয়েছে।

নোবল পুরষ্কার জয়ী ফরাসি বিজ্ঞানী এমানুয়েল জানিয়েছেন, তাঁর এই কৃতিত্ব  আগামী মহিলা প্রজন্মকে ইতিবাচক বার্তা দেবে, যাঁরা বিজ্ঞানের পথ অনুসরণ করবেন আর গবেষণার কাজে নিজেকে নিয়োজিত করবেন তাঁদের একটি বিশেষ দিশা দেখাবে। 

একটি সাধারণ ক্ষতিকারক ব্যাক্টরিয়া নিয়ে গবেষণা করার সময় চার্পেননটিয়ার একটি অজানা অনু আবিষ্কার করেছিলেন।। সেটি ব্যাকটিরিয়ার প্রাচিন প্রতিরোধ ব্যবস্থার অংশ যা তাদের ডিএনএ-র কিছু অংশ ছিন্ন করে ভাইরাসকে নিরস্ত্র করে। ২০১১ সালে তাঁর গবেষণাপত্র প্রকাশ পায়। তারপর সেই ব্যাকটিরিয়া পুণরায় তৈরি করে দৌদনার সঙ্গ একত্রে কাজ করতে শুরু করেছিলেন। তাঁদের এই পদ্ধতি আট বছর আগে গৃহীত হয়েছিল। কিন্তু বর্তমানে এটি রীতিমত সফল বলেও দাবি করেছেন তাঁরা। চিকিৎসা বিজ্ঞানকে এগিয়ে নিয়ে যেতে তাঁদের পদ্ধতি সাহায্য করবে বলেও জানিয়েছেন।