দৌড়ে প্রথম হল রাশিয়া। বিশ্বের প্রথম সফল করোনভাইরাস ভ্যাকসিন তৈরির দাবি জানালো তারা। রুশ টিকার সবরকম পরীক্ষা-নিরীক্ষা শেষ এবং তাতে কোনও সমস্যা ধরা পড়েনি। তাই পরের মাসের মধ্যেই এই টিকা গণহারে উৎপাদন করা হবে বলে জানিয়েছে তারা।

রাশিয়ার, গামলেয়া জাতীয় গবেষণা কেন্দ্র-এর মহামারি ও মাইক্রোবায়োলজি বিভাগ এই করোনাভাইরাস ভ্যাকসিন তৈরি করেছে। বারডেনকো নামে রাশিয়ার এক হাসপাতালে এই ভাইরাসটির মানবদেহে পরীক্ষা করা হয়। ক্লিনিকাল ট্রায়ালের স্বেচ্ছাসেবীদের চূড়ান্ত চেক-আপে সকল অংশগ্রহণকারীর দেহেই ভাইরাসটির বিরুদ্ধে অনাক্রম্যতা দেখা গিয়েছে, বলে জানিয়েছে রুশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রক। সেইসঙ্গে কোনও পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া বা অন্য কোনও সমস্যাও দেখা যায়নি বলে দাবি করেছে মন্ত্রক।

রুশ সংস্থাবাদ সংস্থাগুলির প্রতিবেদন অনুযায়ী প্রাথমিকভাবে সেপ্টেম্বরের মধ্যেই রাশিয়ায় এই টিকার ধারাবাহিক উত্পাদন শুরু হবে। এখনও পর্যন্ত তিনটি রুশ ওষুধ তৈরির সংস্থা এই করোনভাইরাস টিকার বাণিজ্যিক উত্পাদন করার বরাত পেয়েছে। ভারত কি পেতে পারে এই টিকা? রুশ শিল্প ও বাণিজ্যমন্ত্রী ডেনিস মন্তুরভ জানিয়েছেন, এই টিকার সর্বাগ্রে এবং প্রাথমিকভাবে উত্পাদন নির্ভর করবে রুশ স্বাস্থ্য পরিষেবা ব্যবস্থার প্রয়োজনের উপর।

মঙ্গলবার, গত ২৪ ঘন্টায় নতুন ৫,১৫৯ জন  করোনাভাইরাস রোগীর সন্ধান পাওয়ায় রাশিয়ার কোভিড আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৮,৮১,৪২৩ জনে। আগে আছে আমেরিকা, ব্রাজিল ও ভারত। রুশ সরকারের তথ্য অনুযায়ী গত ২৪ ঘন্টায় করোনা জনিত কারণে সেই দেশে মৃত্যু হয়েছে ১৪৪ জনের। সব মিলিয়ে করোনায় মৃত্যুর সংখ্যা রাশিয়া ১৪,৩৫১ জন।