কর্মক্ষেত্রের সুষ্ঠু পরিবেশ বজায় রাখার জন্য যে-কোনও কর্পোরেট সেক্টর-এই একটা পোশাক বিধি মেনে চলতে হয়। যেকোনও অফিসেই মূলত ফর্মাল পোশাক পরার একটা নিয়ম থাকে। কিন্তু রাশিয়ার এক কোম্পানী মহিলাদের পোশাক বিধি নিয়ে এমন এক নিয়ম বেঁধে দিয়েছে যাতে করে চূড়ান্ত সমালোচনার মুখে রাশিয়ার ওই কোম্পানী।

রাশিয়ার এক অ্যালুমিনিয়াম উৎপাদনকারী সংস্থা ট্যাটপ্রফ-এর পক্ষ থেকে চালু করা হয়েছে এক আজব নিয়ম। কোম্পানীর মহিলা স্টাফ যাঁরা রয়েছেন, তাঁরা যদি হাঁটু পর্যন্ত শর্ট স্কার্ট পরে অফিসে আসেন, তাহলে তাঁদের দৈনিক বেতনের সঙ্গে অতিরিক্ত ১০০ রাশিয়ান রুবেল (ভারতীয় মুদ্রায় যার মূল্য প্রায় ১০৪ টাকা) দেওয়া হবে। প্রসঙ্গত গোটা জুন মাস জুড়ে রাশিয়ার ওই কোম্পানীতে পালন করা হবে 'ফেমিনিটি ম্যারাথন' ক্যাম্পেন। আর সেই উপলক্ষ্যেই কোম্পানির মহিলা কর্মচারীদের দেওয়া হবে এই বোনাস। আর সেই বোনাস পেতে হলে মহিলাদের তাঁদের স্কার্ট পরা ছবি পাঠাতে হবে কোম্পানীর দফতরে। 

মোদীর মন্ত্রীসভায় শিক্ষা দফতর সামলাচ্ছেন ভুয়ো ডিগ্রিধারী নেতা, বিতর্ক তুঙ্গে

এক মনে ল্যাপটপ নিয়ে কাজ করছেন- এই ভিডিও দেখলে চমকে উঠবেন

আর এরপরই কোম্পানীর বিরুদ্ধে নিন্দার ঝড় তুলেছেন নেটিজেনরা। তাঁদের অনেকের কথায়, মহিলাদের প্রতি ঘৃণ্যতম আচরণ করছে ওই কোম্পানী। জনপ্রিয় ব্লগার তথা সাংবাদিক জালিনা মার্সহেনকুলোভার এটিকে মধ্যযুগীয় বর্বরতা বলে বর্ণনা করেছেন। তবে এই প্রসঙ্গে কোম্পানীর পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, অফিসে কর্মরত মহিলা কর্মীদের দিকটি বিচার করেই এমন উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। মহিলা কর্মীরা তাঁদের নারীত্ব আরও বেশি করে উপভোগ করতে পারেন তার জন্যই এমন ব্যবস্থা করা হয়েছে। যদিও আজকের দিনে দাঁড়িয়ে এমন নিয়ম চালু করা কতখানি যুক্তিযুক্ত তা নিয়েও প্রশ্ন উঠেছে বিভিন্ন মহলে।