একেবারে প্রথম থেকেই দারুণ ধারাবাহিকতা দেখিয়ে সবার প্রথমে আইপিএল ২০১৯-এর প্লেঅফে জায়গা করে নিয়েছিল চ্যাম্পিয়ন চেন্নাই সুপার কিংস। তারপর একে একে প্লেঅফ খেলা নিশ্চিত করেছে দিল্লি ক্যাপিটাল্স ও মুম্বই ইন্ডিয়ান্স। ফলে আর একটিই জায়গা বাকি রয়েছে প্লেঅফের। সেই জায়গার জন্য লড়াইতে রয়েছে তিনটি দল সানরাইজার্স হায়দরাবাদ, কিংস ইলেভেন পঞ্জাব ও কলকাতা নাইট রাইডার্স। তবে প্লেঅফ নিশ্চিত করা তিনদলের মধ্যেও লড়াই রয়েছে  প্রথম দুই জায়গায় কারা থাকবে তাই নিয়ে। কারণ সেক্ষেত্রে ফাইনালে ওঠার বাড়তি সুযোগ পাওয়া যায়। এক নজরে দেখে নেওয়া যাক আইপিএল ২০১৯-এর প্লেঅফ চিত্রটা বর্তমানে ঠিক কী অবস্থায় রয়েছে -

চেন্নাই সুপার কিংস (১৩ ম্যাচে ১৮ পয়েন্ট)

কিংস ইলেভেন পঞ্জাবের বিরুদ্ধে শেষ ম্যাচে জিতলে তো বটেই না জিতলেও প্রথম দুই দলের মধ্যে থাকার সম্বাবনা রয়েছে ধোনির দলের। তবে সেইক্ষেত্রে তাকিয়ে থাকতে হবে মুম্বই ইন্ডিয়ান্সের দিকে।

দিল্লি ক্যাপিটাল্স (১৪ ম্যাচে ১৮ পয়েন্ট)

দিল্লির হাতে আর ম্যাচ পড়ে নেই। মুম্বই শেষ ম্যাচে হারলে তবেই তারা প্রথম দুই দলের মধ্যে থাকবে।

মুম্বই ইন্ডিয়ান্স (১৩ ম্যাচে ১৬ পয়েন্ট)

দিল্লি ক্যাপিটাল্স-এর থেকে নেট রানরেটে অনেক এগিয়ে আছে মুম্বই ইন্ডিয়ান্স। রবিবার রোহিত শর্মারা কেকেআর-এর বিরুদ্ধে জিতলেই প্রথম দুইয়ে শেষ করবে। আর তারা হেরে গেলে প্রথম দুই স্থানে থাকবে সিএসকে ও ডিসি।

সানরাইজার্স হায়দরাবাদ (১৪ ম্যাচে ১২ পয়েন্ট)

আরসিবির বিরুদ্ধে লিগের শেষ ম্যাচে হেরে পরিস্থিতিটা কঠিন করে তুলেছে হায়দরাবাদ। কেকেআর যদি মুম্বইয়ের বিরুদ্ধে হারে তবেই কেইন উইলিয়ামসনরা প্লেঅফ খেলার সুযোগ পাবেন।

কলকাতা নাইট রাইডার্স (১৩ ম্যাচে ১২ পয়েন্ট)

দীনেশ কার্তিকদের সামনে অঙ্কটা সোজা, মুম্বই ইন্ডিয়ান্স ম্য়াচ জেতো, প্লেঅফ-এর টিকিট পাকা। কিন্তু কেকেআর হারলে কিন্তু এসআরএইচ নেট রানরেটে এগিয়ে থাকার সুবাদে শেষ চারে চলে যাবে।

কিংস ইলেভেন পঞ্জাব (১৩ ম্যাচে ১০ পয়েন্ট)

প্রীতি জিন্টার দলের আশা কার্যত শেষ হলেও অঙ্কের হিসেবে তারা এখনও শেষ চারের লড়াইতে রয়েছে। কেকেআর পরাজিত হলেই তাদের সামনে সুযোগ আসতে পারে। সেই ক্ষেত্রে সিএসকে-কে শেষ ম্যাচে তাদের  প্রায় ২৫০ রানে হারাতে হবে।