করোনাভাইরাসের দ্বিতীয় তরঙ্গের দাপটে স্থগিত হয়ে গিয়েছে ভিভো ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগ ২০২১। টুর্নামেন্টের বাকি অংশ কি হতে চলেছে ইংল্যান্ডে? এরকমই দাবি করে একটি পোস্ট ছড়িয়ে পড়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়। সেই ভাইরাল পোস্টে দাবি করা হয়েছে, ২০২১ সালের পতৌদি ট্রফির সূচি বদলের জন্য ইংল্যান্ড ও ওয়েল্স ক্রিকেট বোর্ড (ECB)-কে অনুরোধ করেছিল বিসিসিআই। তারই প্রেক্ষিতে বেশ কয়েকটি শর্ত দিয়েছে ইসিবি। তারই মধ্যে একটি হল, স্থগিত হয়ে যাওয়া আইপিএল-এর বাকি অংশ হবে যুক্তরাজ্যে। সত্যিই কি তাই?

ভাইরাল পোস্টটিতে আরও বলা হয়েছে, ইসিবির শর্তগুলি মেনে নিয়েছে বিসিসিআই। আইপিএল-এর বাকি অংশ আয়োজন করা ছাড়াও ওই পোস্ট অনুযায়ী ইসিবি আরও শর্ত দিয়েছে, সেপ্টেম্বর মাসে ভিভো আইপিএল-এর ফাইনালের পরই অক্টোবরে ওল্ড ট্র্যাফোর্ড স্টেডিয়ামে পাঁচ টেস্টের পতৌদি ট্রফির পঞ্চম টেস্ট খেলা হবে। এছাড়া ইংল্যান্ড এবং ওয়েলসব্যাপী 'দ্য হ্যান্ড্রেড' নামে যে ১০০ বলের ফ্র্যাঞ্চাইজি ক্রিকেট টুর্নামেন্ট আয়োজিত হবে, সেখানে ভারতীয় খেলোয়াড়দের অংশ নেওয়া নিয়েও ভারতীয় বোর্ডের কাছে আপত্তি জানিয়েছে ইসিবি।

ভাইরাল হওয়া সেই 'ই,সিবি-র বক্তব্য'

তবে, বিসিসিআই-এর এক সূত্র কিন্তু, এশিয়ানেট নিউজ-কে জানিয়েছে, ইসিবি-র সঙ্গে এই জাতীয় কোনও চুক্তিই হয়নি। টেস্ট সিরিজের সূচি বদলের জন্যও কোনও আনুষ্ঠানিক অনুরোধ জানানো হয়নি। তবে এই বিষয়ো ইংল্যান্ড বোর্ডের কর্তাদের সঙ্গে যে অনানুষ্ঠানিকভাবে আলোচনা হয়েছে, তাও অস্বীকার করেনি বিসিসিআই-এর ওই সূত্র। তবে এই বিষয়ে কোনও সিদ্ধান্ত হয়নি এবং ইসিবি-র নামে প্রচারিত বিবৃতিটি নকল বলেই দাবি করেছেন তিনি। ৪ অগাস্ট থেকে শুরু হয়ে ১৪ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত চলবে পতৌদি ট্রফি টেস্ট সিরিজ। বিসিসিআই-এর ওই সূত্র বলেছে, দুই বছর আগে এই সিরিজের সূচি ঠিক হয়েছিল, তাই এই মুহুর্তে তা আর পরিবর্তন করা যাবে না।

তাহলে আইপিএল ২০২১-এর বাকি অংশের খেলা কোথায় হবে? এশিয়ানেট-কে বিসিসিআইয়ের ওই শীর্ষস্থানীয় সূত্র বলেছে, পরিস্থিতির উন্নতি হলে ভারতেই আইপিএলের বাকি আসর বসবে। অন্যথায়, সংযুক্ত আরব আমিরাশাহিতে খেলা হতে পারে। 'দ্য হান্ড্রেড' ফ্র্যাঞ্চাইজি টুর্নামেন্টকে আইপিএল-এর প্রতিদ্বন্দ্বী ক্রিকেট লিগ হিসাবেই দেখছে বিসিসিআই। সূত্রটটির দাবি ভারতীয় ক্রিকেটারদের কোনও প্রতিদ্বন্দ্বী লিগেই খেলতে দেওয়া হয় না। 'দ্য হান্ড্রেড'-এও কোনও ক্রিকেটারকে খেলার অনুমতি দেয়নি ভারতীয় বোর্ড।