এবার মহিলা পরিযায়ী শ্রমিকের করোনা পজিটিভ ধরা পড়লো।উত্তর প্রদেশ থেকে আসেন এই মহিলা শ্রমিক ২২ মে।ট্রুনাট মেশিনে পজিটিভ ধরার পর উত্তরবঙ্গ মেডিকেলে নমুনা পরীক্ষার জন্য পাঠানো হয় গতকাল।আজ মেডিকেল থেকেও রিপোর্ট পজিটিভ আসে।প্রথম আসার পর ধুপগুড়ির কোয়ারিন্টান কেন্দ্রে ছিল।পরে জলপাইগুড়ির  বিশ্ব বাংলা ক্রীড়াঙ্গনে র সারি হাসপাতাল নিয়ে আসা হয়।

জানা গিয়েছে, ডুয়ার্সের বানারহাটের ডায়না চা বাগানের বাসিন্দা এই মহিলা।বিশ্ব বাংলা ক্রীড়াঙ্গন র কোবিড হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়েছে।উত্তরবঙ্গের স্বাস্থ্য দপ্তরের ও এস ডি ডা: সুশান্ত রায় জানান, মহিলা পরিযায়ী শ্রমিকের করোনা পজিটিভ ধরা পড়েছে।

এদিক বাংলায় লাফিয়ে বাড়ছে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা। সোমবার স্বাস্থ্য ভবনের বুলেটিন বলছে, গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ১৪৯ জন। যার মধ্য়ে মারা গেছেন ৬ জন। আজকের পরিসংখ্যান  মিলিয়ে এ রাজ্যে মোট কোভিড আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ৩৮১৬। যার মধ্য়ে ইতিমধ্য়েই কোভিডে মৃত্যু হয়েছে মোট ২০৬ জনের। কো মর্বিডিটি ধরলে মৃতের সংখ্যা ২৭৮।

বুলেটিন বলছে, এ দিন ৯২২৫ টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে রাজ্য়ে।  গতকাল এই সংখ্যাটা ছিল ৯২১৬। গত কয়েক দিন ধরে রাজ্যে পরিযায়ী শ্রমিকদের ফেরার পর এই সংখ্য়াটা দ্রুত গতিতে বাড়ছে। তাই নমুনা পরীক্ষা বেশি হওয়ায় আক্রান্তের সংখ্যাটাও বেশ হবে বলে আশঙ্কা করা হয়েছিল। কিন্তু এদিন সেরকম কিছু হয়নি।

তবে মালদহে এবার করোনা আক্রান্তের সংখ্যা সবথেকে বেশি পাওয়া গিয়েছে। একদিনে উত্তরবঙ্গের এই জেলায় করোনা আক্রান্তের সংখ্য়া ৩৪। জানা গিয়েছে, এদের মধ্য়ে একটা বড় অংশ পরিযায়ী শ্রমিক। এই নিয়ে মালদহে মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়াল ১১৬ জন।  উত্তর দিনাজপুরেও ধরা পড়েছেন ১৩ জন নতুন  আক্রান্ত। অথচ কয়েক দিন আগেও রাজ্যের গ্রিন জ়োনের তালিকায় ছিল এই জেলা। এখন সেখানে আক্রান্তের সংখ্যা ৪৬।