দু'দশক ফের নোবেল জয় বঙ্গসন্তানের। এবারও সেই অর্থনীতিতেই।  বাঙালির উৎসব যেন আর শেষ হচ্ছে না! ঘরের ছেলের নোবেল জয়ের কলকাতায় আনন্দে মাতোয়ারা তাঁর বন্ধু-আত্মীয়-পরিজনেরা। শহরে ফিরলেই অর্থনীতিবিদ অভিজিৎ বিনায়ক বন্দ্যোপাধ্যায়কে রাজকীয় নাগরিক সংবর্ধনা দেওয়ার পরিকল্পনা করে ফেলেছে রাজ্য সরকারও। অনুষ্ঠান হবে নেতাজি ইন্ডোর স্টেডিয়াম।  অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে আমন্ত্রণ জানানো হবে আর এক নোবেলজয়ী অর্থনীতিবিদ অর্মত্য সেনকে। বুধবার নবান্ন থেকে বালিগঞ্জে অভিজিৎ  বন্দ্যোপাধ্যায়ের বাড়িতে যান মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।  তাঁর সঙ্গে ছিলেন তথ্য ও সংস্কৃতি মন্ত্রী ইন্দ্রনীল সেন ও স্বরাষ্ট্রসচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়। অর্থনীতিতে সদ্য নোবেলজয়ীর মা নির্মলা  বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ করেন মুখ্যমন্ত্রী।  

১৯৯৭ সালে অর্থনীতিতে নোবেল পেয়েছিলেন অর্মত্য সেন। তাঁর বন্ধু দীপক বন্দ্যোপাধ্যায় প্রেসিডেন্সি কলেজে(এখন বিশ্ববিদ্যালয় ) অর্থনীতির শিক্ষক ছিলেন। তাঁরই ছেলে অভিজিৎ।  কলকাতার সাউথ পয়েন্ট ও প্রেসিডেন্সি কলেজ থেকে পাশ করে দিল্লির জেএনইউ থেকে অর্থনীতি স্নাতকোত্তর ডিগ্রি পান অভিজিৎ।  ইংল্যান্ডের হাভার্ড থেকে পিএইচি করে এখন পাকাপাকিভাবে থাকেন আমেরিকাতে।  সোমবার এবছর অর্থনীতিতে নোবেল প্রাপক হিসেবে অভিজিৎ বিনায়ক বন্দ্যোপাধ্যায়ের নাম ঘোষণা করেছে নোবেল কমিটি।  বাবা দীপক বন্দ্যোপাধ্যায় প্রয়াত, মা নির্মলাদেবী একাই থাকেন বালিগঞ্জের একটি আবাসনে।  অভিজিৎ-এর নোবেলপ্রাপ্তি খবর পাওয়ার পর তাঁর মা-কে ফুল পাঠিয়ে শুভেচ্ছা জানিয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।  বুধবার নিজেই হাজির হন বালিগঞ্জের 'সপ্তপর্ণী' আবাসনে।  এবার নিজে হাতে ফুল ও মিষ্টি দিয়ে শুভেচ্ছা জানান নোবেলজয়ীর মা-কে।  এখন অভিজিৎ বিনায়ক বন্দ্যোপাধ্যায়ের শহরে আসার অপেক্ষা। সূত্রের খবর, রাজ্য সরকারের তরফে নেতাজি ইন্ডোর স্টেডিয়ামে রাজকীয় সংবর্ধনা দেওয়া হবে নোবেলজয়ীকে।

এখনও পর্যন্ত যা খবর,  ১৯ তারিখ নিজের নতুন বই প্রকাশ অনুষ্ঠানে যোগ দিতে দিল্লিতে আসবেন অর্থনীতিবিদ অভিজিৎ বিনায়ক বন্দ্যোপাধ্যায়। কলকাতায় আসছেন ২২ তারিখ গভীর রাতে।  ২৩ তারিখ শহরের বিভিন্ন অনুষ্ঠানে যোগ দেবেন। জানা গিয়েছে, সেসময় নোবেলজয়ীকে সংবর্ধনা দিতে চাইছে রাজ্য সরকারও। সরকারের তরফে অভিজিৎবাবুর পরিবারের সঙ্গেও যোগাযোগ করা হয়েছে।  এখনও দিনক্ষণ চুড়ান্ত হয়নি।