লকডাউন শেষ হলেই আবার ট্র্যাকে নামবে মেট্রো রেল। তবে সামাজিক দূরত্ব মেনে পরিষেবা দেওয়া খুব একটা সহজ হবে না তাদের ক্ষেত্রে। এ বিষয়ে কী পরিকল্পনা করছে মেট্রো রেল কর্তৃপক্ষ ?

বুধবার থেকেই কলকাতায় চলবে বাস-অ্যাপ ক্যাব, দেখে নিন কোন কোন রাস্তায় মিলবে পরিষেবা

পরিসংখ্যান  বলছে, বিশাল সংখ্যক যাত্রী নির্ভর মেট্রো পরিষেবা দেওয়া যে কঠিন কাজ তা ইতিমধ্য়েই উপলদ্ধি করেছেন মেট্রো রেলের ম্যানেজার। সামাজিক দূরত্ব মেনে কীভাবে মেট্রো চালানো সম্ভব তা নিয়ে একপ্রকার পরিকল্পনা হয়ে গিয়েছে। সংখ্যাতত্ত্ব বলছে, কলকাতা মেট্রোয় যাত্রী সংখ্যা প্রায় সাড়ে ছয় থেকে সাত লক্ষ প্রতিদিন। সোম থেকে শুক্র প্রতিদিন মেট্রো চলে ২৮৮ টি। শনিবার চলে ২৩৬ টি। রবিবার মেট্রো চলে ১২৪টি। সেই জায়গায় রেকের সংখ্যা কমাতে পারে মেট্রো রেল।

চপ, গয়না, মোবাইলের দোকান খোলা যাবে রাজ্যে,নতুন ছাড়পত্র ঘোষণা মুখ্যমন্ত্রীর.

তবে ইস্ট ওয়েস্ট মেট্রোর ক্ষেত্রে সামাজিক দূরত্ব নিয়ে সেভাবে ভাবছে না মেট্রো কর্তৃপক্ষ। এমনিতেই সল্টলেকের এই পরিষেবায় যাত্রী সংখ্যা সেরকম হয় না। তাই সামাজিক দূরত্ব নিয়েও সেরকম মাথাব্যথা নেই কর্তৃপক্ষের।  

১৭ মে তৃতীয় দফার লকডাউনের শেষ হওয়ার পর বেশকিছু পরিকল্পনার করে রেখেছে মেট্রো রেল।  কী রয়েছে সেই পরিকল্পনায়। 

১) স্টেশনের ঢোকার সময় যাত্রীদের ভিড় এড়াতে পাশাপাশি টোকেন কেনার কাউন্টার আলাদা করা হচ্ছে। 

২) সেক্ষেত্রে দুটি টোকেনের লাইনের মধ্যে থাকবে সামাজিক  দূরত্ব।

৩) দুই লাইনের মাঝের কাউন্টার বন্ধ রাখা হবে সামাজিক দূরত্বের জন্য

৪) যাত্রীদের ক্ষেত্রে মাস্ক পরা বা ফেস শিল্ড পরা বাধ্যতামূলক হতে চলেছে।

৫) প্ল্যাটফর্মে প্রবেশের সময়ে স্যানিটাইজ়ার দেওয়ার কথাও ভাবছে মেট্রো কর্তৃপক্ষ।

৬) কামরায়  সামাজিক দূরত্ব-বিধি মেনে চলার জন্য বসার জায়গায় দাগ দেওয়া থাকবে।

৭)এমনকী টোকেনও স্যানিটাইজেশনের ব্যবস্থা করতে পারে মেট্রো কর্তৃপক্ষ।

ইতিমধ্য়েই বুধবার থেকে কলকাতায় সরকারি  বাস ও অ্যাপ ক্য়াব চালানোর  সিদ্ধান্ত নিয়েছে রাজ্য় সরকার। নতুন করে দেশে ১৫টি ট্রেন চালানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে কেন্দ্র। সেক্ষেত্রে শীঘ্রই মেট্রো পরিষেবা চালু হতে পারে বলে মনে করছে ওয়াকিবহাল মহল।

পিপিই পরে দেহ সরালেন মৃতের ভাই, আজব কাণ্ড কলকাতা মেডিক্যালে.