অবশেষে খোঁজ মিলল তিলজলার অপহৃত শিশুর। কলকাতার একটি গেস্ট হাউসেই লুকিয়ে রাখা হয়েছিল তাকে। মা-বাবা সেজে চলছিল টাকা হাতরানোর কাজ। যদিও কলকাতা পুলিশের তৎপড়তায় ধরা পড়ে যায় অপহরণকারীর দল।   
 
সম্প্রতি তিলজলা থানা এলাকায় একটি বাচ্চা নিখোঁজ ছিল কয়েকদিন ধরে। পরিবারের তরফ থেকে কিডন্যাপিং-এর অভিযোগ করা হয়েছিল। বাচ্চাটিকে ছাড়বার জন্য অপহরণকারীরা ১০ লক্ষ টাকা ডিমান্ড করে পরিবারের কাছে। তদন্তে নেমে তিলজলা থানা ফোন ট্রেস করে পর্ণশ্রী থানা এলাকায় বিদ্যাসাগর গেস্টহাউসে আসে । পরে শিশুটিকে উদ্ধার করে তিনজনকে গ্রেফতার করে পুলিশ। 

গেস্টহাউস সূত্রে জানা গিয়েছে, পরশুদিন অপহৃত শিশু তিনজন ব্যক্তির সঙ্গে আসে। সেই থেকে সে গেস্টহাউসেই ছিল। শনিবার ভোর রাতে তিলজলা থানা ও পর্ণশ্রী থানা যৌথ অভিযানে বাচ্চাটিকে উদ্ধার করে ও তিনজনকে গ্রেফতার করে নিয়ে যায়। গেস্ট হাউসের তরফে জানানো হয়েছে, আইডি কার্ড দিয়েই সেখানে রুম নিয়েছিল অপহরণকারীরা। 

তাদের দেখে কোনও ধরনের সন্দেহ হয়নি হোটেলের। এমনকী হোটেলের বয়রাও ওই ব্যক্তিদের আচরণে কোনও ধরনের সন্দেহজনক কিছু দেখেননি। পুলিশকেও একই কথা বলেন হেস্ট হাউসের স্টাফরা। এই অপহরণের পিছনে কোনও আরও বড় দল আছে কিনা তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ