ফাল্গুনী আবাসনের এবার পুজোয়  দেখা মিলবে শুধুমাত্র বাঙালিয়ানার এবং পুরাতন বাংলার বনেদি পরিবারের ঐতিহ্য। যা এখনকার দিনে খুব একটা দেখা যায় না। যে আবাসনের প্রত্যেকেই বাঙালি সেই আবাসনের পুজো যে পুরোদস্তুর বাঙালিয়ানায় মোড়া থাকবে তা বলাই বাহুল্য।

আরও পড়ুন- মাতৃ আরাধনায় তরঙ্গের আশ্রয়ে সল্টলেকের লাবণী আবাসন

অন্যান্য বছরের মতোই এবছরও ফাল্গুনী আবাসনের প্রতিমা থেকে শুরু করে গোটা পুজোই হতে চলেছে সাবেকি ভাবে। মৃন্ময়ী দুর্গাপ্রতিমার চেহারায় থাকছে আশ্চর্য এক স্নিগ্ধতা। প্রতিমাটিকে সাজিয়ে তোলা হবে  চিরাচরিত ডাকের সাজে। মণ্ডপটি হতে চলেছে একেবারে ছিমছাম এবং সুন্দর ভাবে। এছাড়া পুজোর দিন গুলিতে থাকছে নানা সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান এবং আবাসনের প্রত্যেককে বসিয়ে খাওয়ানোর ব্যবস্থা। আবাসনের পুজোর সেক্রেটারি উৎপল মাহাতো জানিয়েছেন পঞ্চমীর দিন তাদের পুজোর উদ্বোধন। উদ্বোধনের দিন থাকছে আগমনী নামে এক উদ্বোধনী অনুষ্ঠান। মুখ্য অতিথি হিসাবে উপস্থিত থাকছেন রবীন্দ্রভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাইস-চ্যান্সেলর। 

আরও পড়ুন- থ্রি-ডি তেই মা দুগ্গার চমক দেখাবে সল্টলেকের ই-সি ব্লক

থিম পুজোর রমরমায় বর্তমানে সাবেকি পুজোর আকাল চলছে বলে বিশেষজ্ঞরা মনে করেন। সেই পরিস্থিতিতে দাঁড়িয়ে যদি ভালো সাবেকিয়ানার মোড়কে মোড়া পুজো উপভোগ করতে চান তবে আসতেই হবে ফাল্গুনী আবাসিকবৃন্দ পরিচালিত এই পুজোয়।