রান্নায় স্বাদ বাড়াতে আদার ভূমিকা কতটা গুরুত্বপূর্ণ তা সকলেরই জানা। তবে স্বাদ শুধু নয় আদায় যে বিশেষ কয়েকটি গুণ রয়েছে তা-ও সকলেরই জানা প্রায়। অল্প ঠান্ডা লাগলেই তাই  আদা-চা মহৌষোধির মতো কাজ করে। খেতেও ভাল লাগে। কিন্তু জানেন কি আদা অতিরিক্ত পরিমাণে খেলে বেশ কিছু সমস্যা হতে পারে। জেনে নেওয়া যাক ঠিক কী কী ক্ষতি হতে পারে আদা খেলে- 

১) গর্ভাবতি মহিলাদের আদা না খাওয়াই ভাল। আদায় বেশ কয়েক ধরনের স্টিম্যুলেট রয়েছে যা শরীরের পেশী মজবুত করে। ফলে অন্তঃসত্তা মহিলাদের আদা এড়িয়ে চলা উচিত। বিশেষ করে গর্ভাবস্থার প্রথম তিন মাস। 

২)  যখন কোনও বিশেষ ধরনের ওষুধ খেতে হয় তখন আদা বুঝে খান। যাঁরা ডায়াবেটিস বা ব্লাড প্রেশারের ওষুধ খান, তাঁদের জন্য আদা বেশ ক্ষতিকর। কারণ, এই দুই অসুখের জন্য যে ওষুধ ব্যবহৃত হয়, তার সঙ্গে আদার রাসায়নিক বিক্রিয়া ঘটলে খারাপ প্রভাব পড়ে। তাই কোনও ওষুধ খাওয়ার সময়ে অতিরিক্ত আদা খাবেন কি না ,সেই বিষয়ে চিকিৎসকের পরামর্শ নিন। 

৩) ওজন বৃদ্ধিতে বাধা- আদা খেলে ওজন নিয়ন্ত্রনে থাকে। তাই কারোও যদি শরীরের ওজন কম হয়, সে ক্ষেত্রে আদার খুবই কম খাওয়া উচিত। কারণ, আদায় ফাইবার থাকে প্রচুর পরিমাণে, যা শরীরের পিএইচ লেভেল বাড়াতে সাহায্য করে। এর ফলে হজমের প্রক্রিয়া খুবই ভাল হয়। কিন্তু অতিরিক্ত মাত্রায় পিএইচ লেভেল বাড়লে ওজন আরও কমতে থাকে। ওজন বাড়াতে চাইলে আদা না খাওয়াই ভাল। 

৪) অতিরিক্ত আদা খেতে বুকে ব্যথাও হতে পারে। তাই পরিমাণের দিকটা সব সময়েই খেয়াল রাখুন।