মেনোপজ হওয়া মানেই জীবনের সব শেষ, কেন ভাবেনটা মনে করেন বেশিরভাগ কাপলরা

| Nov 29 2022, 02:46 PM IST

SEX LIFE

সংক্ষিপ্ত

মেয়েদের ক্ষেত্রে মেনোপজ একটা বড় সমস্যা। বয়স বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে প্রত্যেকেরই শরীরেই পরিবর্তন হয়। এবং সেই সঙ্গে সঙ্গে মেনোপজের পর শারীরিক সমস্যায় জেরবার হয় অনেকেই।

মেয়েদের ক্ষেত্রে মেনোপজ একটা বড় সমস্যা। বয়স বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে প্রত্যেকেরই শরীরেই পরিবর্তন হয়। এবং সেই সঙ্গে সঙ্গে মেনোপজের পর শারীরিক সমস্যায় জেরবার হয় অনেকেই। তবে জানেন কি, শুধু মেয়েদেরই নয়, ছেলেদেরই হতে পারে এই মেনোপজ, যা এনড্রপজ নামে পরিচিত। কীভাবে বুঝবেন আপনার পার্টনার এই রোগে আক্রান্ত। বিশেষ উপায় বাতলালেন বিশেষজ্ঞরা।

মেয়েদের ক্ষেত্রে মেনোপজ একটা বড় সমস্যা। তবে শুধু মেয়েদেরই নয়, ছেলেদেরই হতে পারে এই মেনোপজ, যা এনড্রপজ নামে পরিচিত। গবেষণা বলছে, ৫০-এর কোটায় বয়স্ক দম্পতিরা মিলনের পর কম বয়সিদের চেয়ে অনেক বেশি তৃপ্তি অনুভব করেন। কিন্তু মেনোপজ নিয়ে বর্তমানে অধিকাংশরাই সমস্যায় ভুগছেন। একটা বয়সের পর ছেলেদেরও মুড অফ, মাথা গরম, অবসাদ ঘিরে ধরে। যা থেকে যৌনমিলনেও অনীহা দেখা যায় ছেলেদের মধ্যে। এর জন্য প্রধান কারণই টেস্টোস্টেরন হরমোন, যা পুরুষকে শারীরিক ও মানসিক ভাবে সতেজ রাখে। কিন্তু বয়স বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে শারীরিক পরিবর্তন হয়। সেখান থেকেই যৌনক্ষমতা কমে যায়। নির্দিষ্ট বয়সের পর শরীরে বেশ কিছু লক্ষণ যেমন বিরক্ত লাগা, খিদে কমে যাওয়া, কাজ করতে ভাল না লাগা, মুড সুইং দেখলেই ডাক্তারের কাছে যান এবং সমস্যা সম্পর্কে সচেতন হোন। তবে সামান্য কয়েকটি খাবার এই সমস্যা থেকে মুক্তি দিতে পারে আপনার পার্টনারকে। যেমন মধু, বাঁধাকপি, ডিম, কাঠবাদাম, পালং শাক, আঙুর ফল রাখুন প্রতিদিনের খাদ্যতালিকায়।

Subscribe to get breaking news alerts

 

 

গবেষণা বলছে, ৫০-এর কোটায় বয়স্ক দম্পতিরা মিলনের পর কম বয়সিদের চেয়ে অনেক বেশি তৃপ্তি অনুভব করেন। এর পিছনেও রয়েছে একটা কারণ,এই সময়টাতে যৌবনের মতো অত জোর কারোরই থাকে না যার ফলে এই সময়টাতে আস্তে আস্তে যৌনক্রীড়ায় লিপ্ত হন। তবে ৫০ পেরিয়ে যৌনসুখ পেতে চাইলে সবার আগে নিজের মানসিকতাকে তিরিশ বছরের পর থেকেই পরিবর্তন করতে হবে। যেমন, কখনওই ভাববেন না শুধু কম বয়সেই যৌন জীবন দারুণ ছিল। বয়স যত বাড়ছে ততই আপনার সেই উদ্দামতা হারিয়ে যাচ্ছে। বয়স বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে প্রত্যেকেরই শরীরেই পরিবর্তন হয়। তাই মিলনের আগে নিজের পার্টনারকে আকর্ষনীয় করার চেষ্টা করুন। মিলনের আগের ফোরপ্লের উপর বেশি গুরুত্ব দিন। দেখবেন এতে অনেক বেশি যৌনতাকে উপভোগ করতে পারছেন। হাফ সেঞ্চুরি করার পরই যৌন চাহিদা আরও প্রকট হয়। এতে লজ্জার কোনও কারণ নেই। এতে সম্পর্ক আরও জোড়ালো হয়। তাই ৩০ পেরিয়ে গেলে নিজে সবার আগে পরিবর্তন হন। এবং আপনার সঙ্গীকে পরিবর্তন করুন। ৫০ এর পর মেনোপজ আর এই সময়টাই নাকি যৌনতা উপভোগের মোক্ষম সময় তেমনটাই মনে করছেন গবেষকরা। মেনোপজের পর শরীরে অনেক সমস্যা দেখা যায়,গবেষণায় জানা গেছে সেই সমস্ত সমস্যা থেকে মুক্তি দিতে পারে যৌনমিলনই। এতে শরীর ও মন দুইই ফিট থাকে। শরীর ফিট থাকলেই যৌনতার ইচ্ছা জাগে। আর যাদের মনের প্রবল ইচ্ছা থাকে কিন্তু বয়সের দিকে তাকিয়ে সাহস করে উঠতে পারছেন না তারা চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে পারেন।