Asianet News BanglaAsianet News Bangla

অভাবের সংসারে পড়াশোনা বন্ধ হয়ে যাচ্ছিল ছাত্রীর, সাহায্য় করলেন 'দেবদূত' দীপক অধিকারী

  • অভাব, অনটনের সংসারে পড়াশুনা বন্ধ হতে বসেছিল
  • কলেজে সুযোগ পেয়ে অর্থের অভাবে ভর্তি হতে পাচ্ছিল না
  • অবশেষে সেই ছাত্রীকে পড়াশুনার জন্য সাহায্য করলেন দেব
  • ঘাটালের সাংসদ দীপক অধিকারীতে 'দেবদূত' বললেন পরিবার
Ghatal MP Dev helped poor student for her college admission at Midnapore ASB
Author
kolkata, First Published Sep 11, 2020, 7:34 PM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

সঞ্জীব কুমার দুবে, পূর্ব মেদিনীপুর-বাড়িতে প্রচুর অভাব। অসুস্থ বাবা কাজ করতে পারেন না। অন্যের বাড়িতে পরিচারিকার কাজ করে সংসার কোনও রকমে টেনেটুনে চলত। এর মধ্য়েও নিজে টিউশন পড়িয়ে পড়াশুনা চালিয়ে যাচ্ছিল উচ্চ মাধ্যমিক পাশ করা ছাত্রী জয়শ্রী রানা। কিন্তু কলেজে ভর্তি হতে চাইলেও টাকা কোথায়? এই অবস্থায় তাঁকে কলেজে ভর্তি করালেন ঘাটালের সংসদ দীপক অধিকারী (দেব)।

পূর্ব মেদিনীপুরের পাঁশকুড়ার ময়নাডাল এলাকার বাসিন্দা জয়শ্রী রানা। এবারের উচ্চ মাধ্য়মিক পরীক্ষায় সে ৩৬৫ নম্বর পেয়েছে। পাঁশকুড়া বনমালী কলেজে ফর্ম ফিলাপ করেছিল। বাংলায় অনার্স নিয়ে ভর্তি হতে চেয়েছিল কলেজে। কিন্তু বড়সড় বাধা হয়ে দাঁড়ার পরিবারের আর্থিক সমস্য়া। অগত্য়া কোনও উপায় না দেখে তৃণমূল ছাত্র পরিষদের সভানেত্রী অনামিকা ব্যানার্জীর সঙ্গে যোগাযোগ করে জয়শ্রী। বিষয়টি অভিনেতা সাংসদ দীপক অধিকারীর কানে যায়। জয়শ্রীর কলেজের  ভর্তির ফি টাকা দিয়ে সাহায্য করেন। শুধু তাই নয়, আগামী দিনে জয়শ্রীকে পড়াশুনা চালিয়ে যেতে সবরকম সাহায্যের আশ্বাস দেন দেব।

মেয়ের পড়াশুনার সাহায্য পেয়ে দীপক অধিকারীকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন বাবা-মা। জয়শ্রীর বাবা বলেন, দেবদূতের মতো এসে আমার মেয়েকে কলেজে ভর্তি করেছেন দেব। সাংসদ দীপক অধিকারীর সহযোগিতা পেয়ে উচ্চশিক্ষার স্বপ্ন দেখছে জয়শ্রীও।
 

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios