সঞ্জীব কুমার দুবে, পূর্ব মেদিনীপুর-সোমবার রাত থেকে ভারী বৃষ্টির জেরে বিপর্যস্ত দক্ষিণবঙ্গের বিভিন্ন জেলা। ভারী বৃষ্টিতে বিভিন্ন জায়গায় জল জমে যাওয়ার কারণে দুর্ভোগের শিকার হয়েছেন সাধারণ মানুষ। এই অবস্থায় করুন ছবি দেখা গেল পূর্ব মেদিনীপুর জেলা হাসপাতালে। হাসপাতালে চত্বরে জল ঢুকে যাওয়ায় দুর্ভোগের শিকার হয়েছেন রোগী থেকে আত্মীয়র।

আরও পড়ুন-রেশনের চালে পোকা, নিম্নমানের সামগ্রী, উত্তেজনা ভাতারে

ভারী বৃষ্টিতে এমনিতেই করুন অবস্থা সাধারণ মানুষের। কিন্তু হাসপাতালে চত্বরে জল ঢুকে যাওয়ার কারনে চূড়ান্ত দুর্ভোগের শিকার হয়েছেন রোগীরা। শুধু তাই নয়, রোগীর বেডের তলাতেও জল জমে যাওয়ায় দুর্ভোগ আরও বেড়েছে। হাসপাতালের ভিতর জলের উপর দাঁড়িয়ে রোগীর চিকিৎসা করছেন ডাক্তারাও। পাশাপাশি, হাসপাতালের আউটডোর থেকে শুরু করে জরুরি বিভাগ সহ অধিকাংশ জায়গাতেই জল দাঁড়িয়ে রয়েছে।

আরও পড়ুন-রাতভর বৃষ্টির জেরে জলমগ্ন শিলিগুড়ি, জলবন্দি অবস্থায় স্থানীয় বাসিন্দারা

হাসপাতালে ঢোকার মুখেও দুর্দশার শেষ নেই রোগী থেকে আত্মীয়দের। প্রবেশ পথেই জল থইথই অবস্থা। মুমূর্ষু রোগীকে নিয়েও হাসপাতালে গাড়ি যাতায়াতের ক্ষেত্রেও বাধা মধ্য়ে পড়তে হচ্ছে চালকদের। কার্যত হাঁটুজল পেরিয়ে যাওয়া আসা করতে হচ্ছে রোগী সহ আত্মীয়দের। চাঞ্চল্যকর পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে রোগীদের খাবার তৈরির জায়গাতেও। হাঁটুজলের উপর দাঁড়িয়ে চলছে রান্নার কাজ। 

আরও পড়ুন-রেশনের চালে পোকা, নিম্নমানের সামগ্রী, উত্তেজনা ভাতারে

রোগীর আত্মীয়দের অভিযোগ, প্রতি বারই ভারী বৃষ্টিতে জল জমে যাওয়া হাসপাতালে। অন্যদিকে, করোনা আবহের কারনে নিকাশি নালা সঠিকভাবে পরিষ্কার না হওয়ায় জল জমেছে বেশি। তার জন্য দুর্ভোগের শিকার হচ্ছেন রোগী থেকে চিকিৎসকরা।