চেন্নাই থেকে বাড়ি ফেরার পথে লরির সাথে মুখোমুখি ধাক্কা পরিযায়ীদের মারুতি, আহত ৬ পরিযায়ী শ্রমিক। একটি লরি ও মারুতি ভ্যানের মুখোমুখি সংঘর্ষে গুরুতর আহত হলেন ছয় পরিযায়ী শ্রমিক। তারা ট্রেনে করে চেন্নাই থেকে খড়্গপুর ফেরার পর শনিবার সকালে একটি মারুতি ভাড়া করে হুগলির গোঘাটে ফিরছিলেন নিজেদের এলাকায়। ঘটনাটি ঘটেছে কেশপুরে। আহত ছয়জনকেই মেদিনীপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

ঘটনাসূত্রে জানা গিয়েছে যে ছয়জনের মধ্যে একজন বাঁকুড়ার তালডাংরার বাসিন্দা। বাকীরা হুগলীর গোঘাটে বাড়ি। তারা চেন্নাইয়ে কাজ করতেন। শ্রমিক স্পেশাল ট্রেনে তারা শুক্রবার সন্ধ্যায় খড়্গপুর স্টেশনে ফেরেন। সেখানেই তাদের প্রয়োজনীয় পরিক্ষা নিরীক্ষা করা হয়। এরপর এদিন সকালে তারা নিজেদেরই গ্রামীণ এলাকার একটি মারুতি ভ্যান ভাড়া করে তাতে ফিরে যাচ্ছিলেন।

পথে কেশপুরে কলেজের কাছে উল্টোদিক থেকে আসা একটি লরির সঙ্গে মুখোমুখি সংঘর্ষ হয় মারুতির। মারুতির সামনের অংশ দুমড়ে মুচড়ে যায়। গুরুতর আহত হয়েছেন গাড়ির চালক ও অপর এক পরিযায়ী। পুলিশ লরি ও লরির চালককে আটক করেছে। হাসপাতালে কেশপুরের দুর্ঘটনায় একজন এখন মারা গেছে।  আব্দুল করিম খান(২০), রাজপুর, থানা তালডাংরা, জেলা বাঁকুড়া।