গোয়েন্দা সংস্থারা জানিয়েছে ভারতের মোস্ট ওয়ান্টেড আন্ডারওয়ার্ল্ড ডন দাউদ ইব্রাহিম করোনা ভাইরাসের আক্রান্ত হয়ে মারা গিয়েছেন। আনুষ্ঠানিকভাবে কোথাও এই বিষয়ে কিছু না জানানো হলেও সোশ্যাল মিডিয়ায় এমনই খবর ভাইরাল হয়েছে। একদিন আগেই আবার খবর এসেছিল দাউদ এবং তার স্ত্রী দুজনেই করোনাভাইরাসে সংক্রামিত। তাদের করাচির সেনা হাসপাতালেভর্তি করা হয়েছে। এখন দাউদের মৃত্যুর খবরও ছড়ালো। সত্যিই কি করোনায় মৃত্যু হল এই কুখ্যাত ডনের?

এশিয়ানেট নিউজ বাংলার পক্ষ থেকে অনেক খুঁজেও দাউদের করোনা সংক্রমণ বা করোনায় মৃত্যু সংক্রান্ত কোনও সরকারি গোয়েন্দা তথ্য পাওয়া যায়নি। তবে, দাউদের ভাই আনিস ইব্রাহিম এই সব জল্পনা উড়িয়ে দিয়েছেন। তাঁর দাবি দাউদ নিরাপদেই বহাল তবিয়তে আছেন। অজানা এক অবস্থান থেকে ফোন করে সংবাদমাধ্যমকে আনিস জানিয়েছেন, 'করোনাভাইরাস অবশ্যই একটা বিপজ্জনক মহামারী এবং এটা সারা বিশ্বে ছড়িয়ে পড়েছে। তবে দাউদ ও তার স্ত্রীর উপর এটা হানা দেয়নি। আজকাল তারা দুজনেই ঘরে আছেন।' আনিস আরও জানিয়েছেন দাউদ বা তার পরিবারের কেউই হাসপাতালে ভর্তি নেই এবং সবাই সুস্থ আছে। দাউদের পরিবারে এখনও পর্যন্ত কোনও করোনার পজিটিভের সন্ধান পাওয়া যায়নি।

ডি-কোম্পানির আন্ডারওয়ার্ল্ড অপারেশন এবং এর আর্থিক বিষয়াদি নিয়ন্ত্রণ করে এই আনিস ইব্রাহিম। সংযুক্ত আরব আমিরশাহির বিলাসবহুল হোটেল এবং পাকিস্তানের বৃহত নির্মাণ প্রকল্পগুলিও সামলায় সেই। এর বাইরেও ডি কোম্পানির পরিবহণ ব্যবসাও সে দেখে। কাজেই, তার কথা ডি কোম্পানিরই বয়ান বলে ধরে নেওয়া যেতে পারে। তবে তার কথা যাচাই করার কোনও উপায় নেই। তবে একটা কথা পরিষ্কার কোনও গোয়েন্দা এজেন্সি থেকে এই তথ্য সরকারিভাবে দেওয়া হয়নি। কাজেই ভাইরাল খবরের সেই অংশটি ভূয়ো। বাকিটা নিয়ে জল্পনা এখনও জারি।