১৬ মিনিটে মঙ্গল থেকে পৃথিবীতে পৌঁছল অদ্ভুত সিগন্যাল! তাহলে কি সত্যিই রয়েছে এলিয়েন

| May 25 2023, 11:00 PM IST

Wave
১৬ মিনিটে মঙ্গল থেকে পৃথিবীতে পৌঁছল অদ্ভুত সিগন্যাল! তাহলে কি সত্যিই রয়েছে এলিয়েন
Share this Article
  • FB
  • TW
  • Linkdin
  • Email

সংক্ষিপ্ত

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের পশ্চিম ভার্জিনিয়ায় অবস্থিত গ্রিনব্যাঙ্ক টেলিস্কোপে এই সংকেত পাওয়া গেছে। এছাড়া ইতালির মেডিসিনা রেডিও অ্যাস্ট্রোনমিক্যাল স্টেশন, ক্যালিফোর্নিয়ার অ্যালেন টেলিস্কোপ অ্যারে এবং নিউ মেক্সিকোর ভেরি লার্জ অ্যারেও এই সংকেত পেয়েছে।

পৃথিবী থেকে দূরে অন্য গ্রহে প্রাণের সন্ধান চলছে। এমন পরিস্থিতিতে প্রথমবারের মতো লাখ লাখ কিলোমিটার দূরের কোনো গ্রহ থেকে পৃথিবীতে এলিয়েন সংকেত পাঠানো হয়েছে। এটি একটি এনকোডেড বার্তা, যা মঙ্গল গ্রহ থেকে পৃথিবীতে পাঠানো হয়েছে, বিজ্ঞানীরা জানার চেষ্টা করেছেন যে কোনও এলিয়েন কোনও সংকেত পাঠালে আমরা এটি গ্রহণ করতে পারব কি না। এখন বিজ্ঞানীরা এই এনকোডেড বার্তাটি পড়ার জন্য সারা বিশ্বের মানুষের কাছে সাহায্য চেয়েছেন।

সিগন্যালটি মঙ্গল থেকে পৃথিবীর দূরত্ব ১৬ মিনিটে কভার করেছে

মঙ্গল গ্রহ যখন পৃথিবীর সবচেয়ে কাছে থাকে তখনও এর দূরত্ব প্রায় ৩.৮৬ কোটি কিলোমিটার। এত দূর থেকে, ইউরোপীয় মহাকাশ সংস্থার এক্সোমার্স ট্রেস গ্যাস অরবিটার (TGO) বুধবার রাত ৯টার দিকে পৃথিবীতে একটি বার্তা দেয়। এই বার্তাটি প্রায় ৪০ মিলিয়ন কিলোমিটার পথ পাড়ি দিয়ে মাত্র ১৬ মিনিটের মধ্যে পৃথিবীতে পৌঁছেছে। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের পশ্চিম ভার্জিনিয়ায় অবস্থিত গ্রিনব্যাঙ্ক টেলিস্কোপের মাধ্যমে এই সংকেত পাওয়া গেছে। এছাড়া ইতালির মেডিসিনা রেডিও অ্যাস্ট্রোনমিক্যাল স্টেশন, ক্যালিফোর্নিয়ার অ্যালেন টেলিস্কোপ অ্যারে এবং নিউ মেক্সিকোর ভেরি লার্জ অ্যারেও এই সংকেত পেয়েছে।

এলিয়েনদের সংকেত পাওয়ার পর বড় পরিবর্তন আসবে

মঙ্গল গ্রহ থেকে পাঠানো সংকেতকে ঐতিহাসিক হিসেবে বিবেচনা করছেন বিজ্ঞানীরা। তারা বিশ্বাস করেন যে আসলে এলিয়েনদের সংকেত পাওয়া একটি বড় পরিবর্তন আনবে। সার্চ ফর এক্সট্রাটেরেস্ট্রিয়াল ইন্টেলিজেন্স ইনস্টিটিউট (SETI) এর বিজ্ঞানী এবং 'এ সাইন ইন স্পেস' প্রকল্পের প্রধান ড্যানিয়েলা ডি পলিস বলেছেন, তার ইতিহাস জুড়ে, মানবতা সর্বদা শক্তিশালী এবং রূপান্তরকারী মুহুর্তগুলির অর্থ অনুসন্ধান করেছে। বহির্জাগতিক সভ্যতা (এলিয়েন) থেকে সংকেত বা বার্তা পাওয়া সমগ্র মানব জাতির জন্য একটি বড় রূপান্তরমূলক অভিজ্ঞতা হবে।

বার্তাটি ডিকোড করতে সারা বিশ্বের মানুষের কাছ থেকে সাহায্য চাওয়া হয়েছে৷

ডি পলিস SETI-এর অধীনে সারা বিশ্ব থেকে আন্তর্জাতিক বিশেষজ্ঞ, মহাকাশ বিজ্ঞানী এবং শিল্পীদের একটি যৌথ দল গঠন করেছে, যা এলিয়েন থেকে আসা বার্তাগুলিকে ডিকোডিং এবং ব্যাখ্যা করার প্রক্রিয়া প্রস্তুত করছে৷ মঙ্গল গ্রহ থেকে আসা সিগন্যালকে ডিকোড করার জন্যও তিনি সারা বিশ্বের কাছে সাহায্য চেয়েছেন যাতে এলিয়েন সিগন্যাল আসলে পৃথিবীতে পৌঁছালে তা ডিকোড করা বা রিড করা যায়। মঙ্গল গ্রহ থেকে আসা সংকেত ডিকোড করা হয়েছে কি না তা তিনি বলেননি। তবে জেনে রাখা ভালো এই সংকেতগুলো এসেছে মঙ্গল গ্রহ থেকে, যা কোনো এলিয়েন নয়, ইউরোপীয় মহাকাশ সংস্থার এক্সোমার্স ট্রেস গ্যাস অরবিটার (TGO) পাঠিয়েছে।