সোমবার নদিয়ার রাণাঘাটের হবিবপুরের জনসভা থেকে কেন্দ্রের বিরুদ্ধে সুর চড়ালেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন থেকে আয়ুষ্মান প্রকল্প একাধিক বিষয়ে কেন্দ্রের বিরুদ্ধে তোপ দাগলেন তৃণমূল নেত্রী । আয়ুষ্মান প্রকল্প নিয়ে তিনি বলেন কেন্দ্র আপনাকে ৬০ টাকা দেবে আর আপনাকে দিতে হবে ৪০ টাকা। সেখানে রাজ্যের স্বাস্থ্য সাথী প্রকল্পের পুরো টাকাই দিয়ে দেবে রাজ্য। পাশাপাশি তিনি জানিয়েছেন তিনি নিজেও স্বাস্থ্য স্বাথী প্রকল্পের সদস্য হয়েছে। লাইনে দাঁড়িয়ে কার্ডও সংগ্রহ করেছেন। রাজ্যের বেশ কয়েকটি বড় বড় হাসপাতাল স্বাস্থ্য সাথীর কার্ড নিয়ে আপত্তি তুলেছে, তাদের সঙ্গে বৈঠক করে পরিস্থিতি সামাল দেওয়া হবে বলেও জানিয়েছেন তিনি। স্বাস্থ্য সাথী নিয়ে কোনও সমস্যা তৈরি হলে সংশ্লিষ্ট থানায় অভিযোগ জানানোর পরামর্শও দিয়েছেন তিনি। 

এদিন নদিয়া থেকেও মতুয়াদের বার্তা দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তিনি বলেছেন যাঁরা রয়েছে এদেশে তাঁরা সকলেই নাগরিক। একই সঙ্গে তিনি কেন্দ্রের আনা নগরিকত্ব সংশোধনী আইনেরও তীব্র সমালোচনা করেন। তিনি বলেন, বাংলায় কোনও উদ্বাস্তু পরিবার থাকবে না। সকল বাসিন্দাও পাট্টা পাবে। তিনি আরও বলেন স্বাধীনতার পর থেকে যেসব উদ্বাস্তু পরিবার রাজ্যে ছিলেন তাঁদের নিয়ে কেউ কোনও কথা ভাবেনি। তিনি আরও বলেন, তাঁর সরকার ৯৬টি কলোনিকে পাট্টা দিয়েছে। আগামি দিনে ১.৫ লক্ষ পরিবারকে পাট্টা দেওযার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বলেও জানিয়েছেন তিনি। 

মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এদিন বিজেপির পাশাপাশি না করে সিপিএম-এরও সমালোচনা করেন। তিনি লোডশেডিং নিয়ে বামেদের নিশানা করেন। তিনি বলেন বর্তমান প্রজন্ম জানেই না লোডসেডিং কী। কিন্ত সিপিএমের আমলে দিনরাত লোজসেডিং হত। এছাড়াও তাঁর সরকারের একাধিক উন্নয়নমূলক প্রকল্প তুলে ধরেন তিনি।