'বাংলার কৃষকরা কিষাণ সম্মান নিধি থেকে বঞ্চিত', হলদিয়ার রাজনৈতিক সভার ২৪ ঘন্টা কাটতে না কাটতেই সোমবার রাজ্যসভায় ফের আরও একহাত নিলেন তৃণমূলের সরকারকে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। 

আরও পড়ুন, 'দেশকে বদনাম করতে ষড়যন্ত্র চলছে, চা শিল্পে আঘাত হানার চেষ্টা', অসমে দাঁড়িয়ে চাঞ্চল্যকর দাবি মোদীর 
 

'কৃষকদের  প্রকল্প নিয়েও রাজনীতি বাংলায়'


সোমবার রাজ্যসভায় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী বললেন, 'কৃষি আইনের সুফল নিয়ে নীরব বিরোধীরা, বাংলার কৃষকরা কিষাণ সম্মান নিধি থেকে বঞ্চিত। কৃষকদের এই প্রকল্প নিয়েও রাজনীতি বাংলায়। কৃষি ঋণ মুকুবের সুবিধা ছোট কৃষকরা পায় না। এরপরেই তিনি ঘোষণা করেন '৯০ হাজার কোটি টাকার বিমা সুবিধা কৃষকদের জন্য বরাদ্দ।' উল্লেখ্য়, রবিবারই হলদিয়ার রাজনৈতিক সভা থেকে প্রধানমন্ত্রী মোদী জানিয়েছেন,' কিছুদিন আগেই কৃষকদের নাম পাঠিয়েছে রাজ্য সরকার। বাংলায় প্রায় ২৫ লক্ষ কৃষক তৃণমূল সরকারের কাছে আবেদন জানিয়েছেন। রাজ্যের কৃষক, গরীবদের জন্য ৪ কোটি জনধন অ্যাকাউন্ট খুলেছিল কেন্দ্র। সরাসরি ব্যাঙ্ক অ্য়াকাউন্টে টাকা দিয়ে  অ্য়াকাউন্ট খুলতে সাহায্য করেছিল কেন্দ্র। এই প্রকল্পের সুবিধা কিন্তু পশ্চিমবঙ্গের মানুষ পায়নি। রাজ্য সরকার কৃষকদের এই টাকা থেকে বঞ্চিত করেছে। কৃষকদের ব্যাঙ্কের তথ্য পর্যন্ত দেয়নি রাজ্য সরকার। মা-মাটি-মানুষের সরকারের জন্য টাকা পায়নি কৃষকরা। কিন্তু ২৫ লক্ষের মধ্য়ে মাত্র ৬ হাজার কৃষকের নাম পাঠিয়েছে রাজ্য। কেন্দ্র এখনও ৬ হাজার কৃষককে টাকা পাঠাতে পারছে না।'

আরও দেখুন, Election Live Update- বাংলার কৃষকরা কিষাণ সম্মান নিধি থেকে বঞ্চিত, সাফ জানালেন মোদী  

 

কৃষি আইনের পক্ষে সওয়ার মোদীর

সোমবার কৃষি আইনে প্রসঙ্গ তুলে বলে মোদী বলেন, 'আন্দোলনরত কৃষকদের বোঝাতে হবে। সবাই মিলে কৃষকের সমস্যার সমাধান করব। তিনি আরও বলেন ফসল বিমা যোজনায় এক্তিয়ার বাড়িয়েছি।' এদিন  কৃষকদের সঙ্গে আলোচনায় বসার ডাক দেন মোদী। তবে এহেন বক্তব্য়ের পর তিনি ফের তৃণমূলের উদ্দেশ্য়ে তোপ দাগেন, এবং বলেন ডেরেক বাংলার কথা বলছেন নাকি দেশের কথা বলে প্রশ্ন তোলেন তিনি। স্বাভাবিকভাবেই শনিবার জেপি নাড্ডার কৃষক সুরক্ষা অভিযান, রবিবার হলদিয়ায় এসে কৃষকদের পক্ষে সওয়াল এবং সোমবার ফের সেই সুরেই মা-মাটি-মানুষের সরকারকে খোঁচা দিলেন মোদী।