Asianet News BanglaAsianet News Bangla

উত্তপ্ত লখিমপুর খেরি, যোগী রাজ্যে রওনা তৃণমূলের ৫ সদস্যের প্রতিনিধিদলের

আর আজ সকালে তৃণমূলের ৫ জনের প্রতিনিধিদল লখিমপুরের উদ্দেশে রওনা দেন। সেই প্রতিনিধি দলে রয়েছেন দোলা সেন, কাকলি ঘোষ দস্তিদার, প্রতিমা মণ্ডল, আবির রঞ্জন বিশ্বাস এবং সুস্মিতা দেব।

five member of TMC delegation left for Lakhimpur Kheri in uttar pradesh bmm
Author
Kolkata, First Published Oct 4, 2021, 12:16 PM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

উত্তরপ্রদেশের লখিমপুরে (Lakhimpur) গাড়িতে পিষে গিয়ে ও গুলিতে ৮ জনের মৃত্যু (Death) হয়েছে। এই ঘটনার পর থেকেই উত্তপ্ত রয়েছে পরিস্থিতি। গতকালই টুইটারে (Twitter) এই ঘটনার নিন্দা করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Banerjee)। টুইটারে তিনি লেখেন, "লখিমপুর খেরিতে বর্বর ঘটনার কড়া নিন্দা করছি। কৃষক (Farmer) ভাইদের প্রতি বিজেপির বিরূপ মনোভাবে আমি ব্যথিত। কৃষকদের প্রতি সব সময় নিঃশর্ত সমর্থন (Support) থাকবে।" আর আজ সকালে তৃণমূলের ৫ জনের প্রতিনিধিদল (TMC Delegation Team) লখিমপুরের উদ্দেশে রওনা দেন। সেই প্রতিনিধি দলে রয়েছেন দোলা সেন (Dola Sen), কাকলি ঘোষ দস্তিদার, প্রতিমা মণ্ডল, আবির রঞ্জন বিশ্বাস এবং সুস্মিতা দেব (Sushmita Deb)।

প্রসঙ্গত, রবিবার থেকেই উত্তরপ্রদেশের লখিমপুরের খেরি উত্তপ্ত হয়ে উঠেছে। উপ মুখ্যমন্ত্রী কেশব প্রসাদ মৌর্য ও কেন্দ্রীয় মন্ত্রী অজয় কুমার মিশ্রের আসা নিয়ে প্রতিবাদ বিক্ষোভে (Protest) সামিল হন কৃষকরা। অভিযোগ, একটি গাড়ি কৃষকদের ধাক্কা দেয়। এরপরেই অশান্ত হয়ে ওঠে পরিস্থিতি। দু'টি এসইউভি গাড়িতে কৃষকরা আগুন লাগিয়ে দেয় বলে অভিযোগ। সূত্রের তরফে দাবি করা হয়েছে, যাঁরা গাড়িতে ছিল তাঁদের মধ্যে চারজনের মৃত্যু হয়েছে। অন্যদিকে আরও চারজন কৃষকের মৃত্যু হয়েছে বলে দাবি করা হয়েছে।

আরও পড়ুন- জ্বলল পুলিশের গাড়ি, 'গ্রেফতার' প্রিয়াঙ্কা গান্ধী, বিক্ষোভে কৃষকরা

এই ঘটনার পরই নিহত কৃষকদের পরিবারের সঙ্গে দেখা করতে সেখানে যাওয়ার চেষ্টা করেন একাধিক বিরোধী রাজনৈতিক দলের নেতারা। যদিও যোগী পুলিশের তরফে তাঁদের সেখানে যেতে বাধা দেওয়া হয়। আম আদমি পার্টির নেতা সঞ্জয় সিংকে পুলিশ আটক করেছে বলে জানা গিয়েছে। এছাড়া, সমাজবাদী পার্টির নেতা অখিলেশ যাদবকে লখিমপুর যাওয়া থেকে আটকাতে তাঁর বাড়ির সামনেই মোতায়েন করা হয়েছে পুলিশ। কংগ্রেসের সাধারণ সম্পাদক প্রিয়াঙ্কা গান্ধী ভডরা এবং দলের অন্য নেতারা সোমবার ভোরে লখিমপুরে পৌঁছান। তাঁদের অভিযোগ নির্যাতিত কৃষকদের সঙ্গে ও তাঁদের পরিবারের সঙ্গে কংগ্রেসের প্রতিনিধি দলকে দেখা করতে দেওয়া হয়নি। ওই এলাকার প্রধান রাস্তা দিয়ে ঘটনাস্থালে যেতে পারেনি তাঁরা। কারণ রাস্তা আটকে রাখা হয়েছিল। এরপর অন্য রাস্তা দিয়ে তাঁরা লখিমপুর পৌঁছান।

আরও পড়ুন- 'বাংলার সর্বনাশ করেছেন, এবার বাকি জায়গার করুন', তৃণমূলের প্রতিনিধিদের উত্তরপ্রদেশ সফর নিয়ে কটাক্ষ দিলীপের

এরপর আজ সকালে লখিমপুরের উদ্দেশে রওনা দেন তৃণমূলের প্রতিনিধি দল। এ প্রসঙ্গে বিমানবন্দরে দোলা সেন বলেন, "দলের পক্ষ থেকে ৫ জনের প্রতিনিধিদল উত্তরপ্রদেশের লখিমপুর খেরিতে কৃষক পরিবারের সঙ্গে দেখা করতে যাচ্ছে। তানাসাহি চলছে উত্তরপ্রদেশ। দেশজুড়ে মানুষের উপর অত্যাচার চলছে। কৃষকদের উপর গাড়ি চালিয়ে দেওয়া হল। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় রাতেই আমাদের ঘটনাস্থলে যাওয়ার নির্দেশ দেন।"

আরও পড়ুন- পানামার পর এবার প্যান্ডোরা, প্রকাশ্যে বিশ্বের বৃহত্তম আর্থিক কেলেঙ্কারি

যদিও তৃণমূলের উত্তরপ্রদেশ সফরকে কটাক্ষ করেছেন বিজেপি নেতা দিলীপ ঘোষ। এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, "বাংলায় সর্বনাশ করে দিয়েছেন। এবার বাকি জায়গায় করুন। ওখানে কোনও একটা বিতর্কিত ব্যাপার হয়েছে। ওখানকার বাসিন্দারাই বলতে পারবেন কি হয়েছে। তবে, যেভাবে বিষয়টিকে ব্যাখ্যা করা হচ্ছে, তাতে সত্যকে ঠিক সামনে আনা হচ্ছে না।"

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios