কলকাতায় বৃষ্টি শুরু  দিনভর কলকাতা-সহ দক্ষিণবঙ্গে বৃষ্টি। হালকা থেকে মাঝারি বৃষ্টি।  বজ্রবিদ্যুৎ সহ শিলা বৃষ্টির সম্ভাবনা পশ্চিমের বেশকিছু জেলায়। আজ হালকা বৃষ্টি হবে  উত্তরবঙ্গেও। কলকাতা ও তার পার্শ্ববর্তী অঞ্চলে ভোররাত থেকেই শুরু হয়েছে অঝোর ধারায় বৃষ্টি। আগেই আলিপুর আবহাওয়া দফতরের তরফে জানানো হয়েছিল রাতে বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। বৃহস্পতিবার সকাল থেকেই শহরের আকাশ মেঘলা  ছিল। বিকেল অবধি বৃষ্টি নামার শুধু সময়ের অপেক্ষা ছিল।তারপর সন্ধ্যে নামতেই  শুরু হয় বৃষ্টি শহর জুড়ে বৃষ্টি।   

আরও পড়ুন, বাংলার কন্যাশ্রী ট্যাবলো দেশকে নিচু দেখানোর চেষ্টা, বিতর্কিত মন্তব্য় সায়ন্তন বসুর


তবে শনিবার বৃষ্টি বাড়বে উত্তরবঙ্গের জেলাগুলিতে। মাঝারি বৃষ্টির সঙ্গে বজ্রবিদ্যুৎ-সহ শিলা বৃষ্টির সম্ভাবনা। শুক্রবার ও শনিবার, সিকিম ও দার্জিলিংয়ের পার্বত্য এলাকায় মাঝারি মানের তুষারপাতের সম্ভাবনা রয়েছে।কলকাতাসহ দক্ষিণবঙ্গের শনিবার সকাল পর্যন্ত চলবে বৃষ্টি। তবে রবিবার থেকে  আকাশ আবার পরিষ্কার হয়ে যাবে। তাপমাত্রা আবার নামবে তারপরে। আগামী সপ্তাহের শুরুতেই জাঁকিয়ে শীতের সম্ভাবনা। তবে পশ্চিমী ঝঞ্ঝায় তাপমাত্রা খুব একটা বাড়বে না। শীতের আমেজ বজায় থাকবে রাজ্যজুড়ে। আবহাওয়া দফতরের খবর অনুযায়ী, উত্তরবঙ্গে রয়েছে ,ঘনকুয়াশার পূর্বাভাস।  আজ সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১৫.৮ ডিগ্রী সেলসিয়াস যা স্বাভাবিকের থেকে দুই ডিগ্রি বেশী। এবং সর্বোচ্চ তাপমাত্রা  ২২.৫  ডিগ্রি সেলসিয়াস ।  মঙ্গলবার শহরের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা থাকতে পারে ২২.৫   ডিগ্রি সেলসিয়াসের কাছাকাছি।  শহরের বাতাসে আপেক্ষিক আর্দ্রতার পরিমাণ সর্বাধিক  ৯৮  শতাংশ। আপেক্ষিক আর্দ্রতার পরিমাণ ন্যূনতম ৪০ শতাংশ। 

আরও পড়ুন, নবম শ্রেণির ছাত্রকে লক্ষ্য করে গুলি, চাঞ্চল্য মুর্শিদাবাদের খড়গ্রামে

 
শুক্রবার , রাজ্য়ের বিভিন্ন জেলায় তাপমাত্রার বেশ বড় সড় পরিবর্তন হয়েছে।   ডায়মন্ড হারবারের তাপমাত্রা ১৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস,ক্যানিং  এর তাপমাত্রা ১৬.৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস,মেদিনীপুরের তাপমাত্রা ১৬.১ ডিগ্রি সেলসিয়াস, কাঁথির তাপমাত্রা ১০.৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস,হলদিয়ার তাপমাত্রা ১৬.৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস এবং দীঘার তাপমাত্রা এই মুহূর্তে ১৫.৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস। অপরদিকে, বারাকপুরের তাপমাত্রা ১৫.৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস,বাঁকুড়ার তাপমাত্রা ১৫.৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস, হুগলির তাপমাত্রা ১৫.৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস এবং বর্ধমানের তাপমাত্রা ১৫.৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস এবং কৃষ্ণনগরের তাপমাত্রা ১২ ডিগ্রি সেলসিয়াস। পানাগড়ের তাপমাত্রা ১৫.৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস এবং শ্রীনিকেতনের তাপমাত্রা সবচেয়ে কমে ১৫.৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস। আসানসোল এর তাপমাত্রা ১৫.৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস,  কলাইকুন্ডার তাপমাত্রা ১৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস,  মালদার তাপমাত্রা ১৬.১ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

আরও পড়ুন, নবম শ্রেণির ছাত্রকে লক্ষ্য করে গুলি, চাঞ্চল্য মুর্শিদাবাদের খড়গ্রামে

 আবহাওয়া দফতর সূত্রে খবর, পশ্চিমী ঝঞ্ঝা এবং পুবালি হাওয়ার সংঘাতে এই বৃষ্টি শুরু হয়েছে। তাঁরা আগেই জানিয়েছিল ঘূর্ণাবর্তের জন্য় এই বৃষ্টি হতে পারে। ঘূর্ণাবর্তের হাওয়া যত শহরের ভিতরে প্রবেশ করেছে, তত পূর্ব দিন থেকে হাওয়ার পরিমাণ বেড়েছে। এর অন্য়তম কারণ,একদিকে পাহাড়ের দিক থেকে ধেয়ে আসা ঝঞ্ঝা ও অপরদিকে সমুদ্রের দিক থেকে আসা পূবালী হাওয়া। এরফলেই সকালেই কলকাতা ও তার পার্শ্ববর্তী অঞ্চলে ভোররাত থেকে শুরু হয়েছে অঝোর ধারায় বৃষ্টি।