Asianet News BanglaAsianet News Bangla

করোনার বাড়বাড়ন্ত রাজ্যে, মাস পাঁচেক পর হোক পুরভোট, মুখ্যমন্ত্রীকে হাতজোড় করে আবেদন সৌমিত্রর

বাঁকুড়ার ভৈরবস্থানে বিধায়ক কার্যালয়ে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়েছিলেন সৌমিত্র। তিনি বলেন, "মেলা, খেলা, উৎসব করে এ রাজ্যে করোনার বেড়ে গিয়েছে। এই পরিস্থিতিতে পুরসভা নির্বাচন নয়। আরও চার, পাঁচ মাস পর করোনার প্রকোপ কমলে রাজ্যে পুরসভা নির্বাচন হোক।" 

Soumitra Khan appeals to CM Mamata to Postpone municipality Election bmm
Author
Kolkata, First Published Jan 6, 2022, 1:08 AM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

রাজ্যে করোনার গ্রাফ (Corona Graph) ঊর্ধ্বমুখী। আর সেই পরিস্থিতির মধ্যেই রাজ্যে পুরভোটের (Municipal Election) দামামা বেজে গিয়েছে। শুরু হয়ে গিয়েছে প্রচারও (Campaign)। এদিকে করোনা সংক্রমণের (Corona) উপর রাশ টানতে রাজ্যে জারি রয়েছে কড়া বিধিনিষেধ। আর তার মধ্যে পুরভোট করানোর প্রয়োজনীয়তা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছে বিরোধীরা। তবে শাসক দলের বেশিরভাগ সদস্যই নির্বাচন কমিশনের কোর্টে বল ঠেলেছে। এদিকে করোনা পরিস্থিতিতে (Corona Situation) ভোট করা উচিতই নয় বলে দাবি করলেন বিষ্ণুপুরের সাংসদ সৌমিত্র খাঁ (Soumitra Khan)। ভোট এই মুহূ্র্তে মুলতুবি রাখতে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে (Mamata Banerjee) করজোড়ে আবেদন করেন তিনি।

বাঁকুড়ার ভৈরবস্থানে বিধায়ক কার্যালয়ে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়েছিলেন সৌমিত্র। তিনি বলেন, "মেলা, খেলা, উৎসব করে এ রাজ্যে করোনার বেড়ে গিয়েছে। এই পরিস্থিতিতে পুরসভা নির্বাচন নয়। আরও চার, পাঁচ মাস পর করোনার প্রকোপ কমলে রাজ্যে পুরসভা নির্বাচন হোক।" হাতজোড় করে মুখ্যমন্ত্রীর কাছে ভোট পিছিয়ে দেওয়ার অনুরোধ করেন তিনি। যদিও স্থানীয় তৃণমূল নেতৃত্বের দাবি, কলকাতা পুরসভা নির্বাচনে হেরে প্রচারে আসার জন্য আবোল তাবোল কথা বলছেন সৌমিত্র। 

সৌমিত্র বলেন, "২৫ ডিসেম্বরের আগে এ রাজ্যে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা আর আজকের করোনা আক্রান্তের সংখ্যার ফারাক অনেক। এর জন্যে পুরোপুরি মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় দায়ী। রাজ্যের অধিকাংশ পুরসভায় গত আড়াই বছর ধরে নির্বাচন স্থগিত হয়ে রয়েছে। তৃণমূলের লোকজনেরাই পুরসভাগুলি চালাচ্ছে। এই অবস্থায় রাজ্য সরকার যদি চার থেকে পাঁচ মাস পুর নির্বাচন পিছিয়ে দিত তাতে কোনও সমস্যা হত না। আমরা চাই আগে রাজ্য করোনা মুক্ত হোক। তারপরে পুরসভাগুলির নির্বাচন হোক। মুখ্যমন্ত্রীর কাছে আমাদের নিবেদন এভাবে বাংলার মানুষকে বিপদের  দিকে ঠেলে দেবেন না।"

এই পরিস্থিতিতে রাজ্যে পুরসভা নির্বাচন করার জন্য এদিন রাজ্য নির্বাচন কমিশনারকেও একহাত নেন সৌমিত্র। তিনি বলেন, "নির্বাচন কমিশনার বৃদ্ধ মানুষ। তিনি সুব্রত মুখোপাধ্যায়ের কাছের লোক ছিলেন। এখন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় তাঁকে নির্বাচন কমিশনার করেছেন।"

সৌমিত্র খাঁর এই বক্তব্যের পরিপ্রেক্ষিতে তৃণমূলের দাবি, কলকাতা নির্বাচনে বিজেপির যত জন প্রার্থী জিতেছেন তাঁরা একটি স্কুটারে চেপেই পুরসভায় যেতে পারেন। এই অবস্থায় সৌমিত্র খাঁ বুঝে গিয়েছেন রাজ্যের পুরসভাগুলিতে জয় কোনওভাবেই সম্ভব নয়। তাই তিনি প্রচারে আসার জন্য আবোল তাবোল কথা বলছেন।

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios