ফের গরু নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষের। বর্ধমানের টাউনহলের ঘোষ ও গাভী কল্যাণ সমিতির বর্ষপূর্তিতে এসে দিলীপ ঘোষ বলেন, যারা রাস্তায় দাঁড়িয়ে গরুর মাংস খায়, আমি বলছি কুকুরের মাংসও খান, শরীর ভালো থাকবে।  কিন্তু রাস্তায় দাঁড়িয়ে খান কেন । বাড়িতে খান না কে বারণ করেছে। আমরা গরুকে মা রূপে দেখি। মায়ের পর গরুর দুধ খেয়েই বাচ্চারা বড় হয়ে ওঠে। তাই ভারতের মাটিতে গরুকে হত্যা করা,মাংস খাওয়া মহা অপরাধ। যারা গোহত্যা করে তাদেরকে আমরা সমাজবিরোধীর চোখেই দেখব। সেকারণে গো পূজকদের মধ্যে সেই শক্তি সামর্থ থাকা চাই, যাতে তাঁরা যেন গরুকে রক্ষা করতে পারে।

সম্প্রতি একটি মামলায় বিজেপি নেতা আনিসুর রহমানকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। এদিন যা নিয়ে মন্তব্য করেন দিলীপ ঘোষ। বিজেপির রাজ্য সভাপতি বলেন, গ্রেফতার করেছে তো কি হয়েছে। একটা আনিসুরকে গ্রেফতার করেছে কিন্তু দশটা আনিসুর বাইরে আছে। এই ধরনের প্রতিহিংসাপরায়ণ পুলিশ দিয়ে বিজেপিকে আটকাতে পারবে না।পুরোটাই একটা মিথ্যে মামলা। যার ভিত্তিতে ওরা অ্যারেস্ট করল। জেল থেকে বেরোলে দুমাস পরে আবার একটা মামলা করছে। এরকম অনেক জনকেই বিভিন্ন  কেস দিয়ে অ্যারেস্ট করানো হচ্ছে। গাঁজার কেস দিচ্ছে, ধর্ষণের কেস দিচ্ছে। সব লড়ছি আমরা । আঠাশ হাজার কেস লড়ছি আরও নয় আঠাশ হাজার কেস লড়ব।

তবে দিলীপ যাই বলুন না কেন দেশের বাস্তব চিত্র বলছে অন্য কথা। সামনে গরু কাটা যাবে না বলে স্লোগান দিলেও পিছনে এই গোহত্যাকেই পরোক্ষে সমর্থন করছে মোদী সরকার। ভারতের রফতানি চিত্র বলছে, সারা বিশ্বে ভারত অন্যতম বিফ রফতানিকারী। দেশের বিভিন্ন কসাইখানা থেকে গোমাংস বিদেশে রফতানি করা হয়। কিন্তু বার বার বিতর্ক হলেও দেশের অর্থনীতির কথা ভেবে এই রফতানি বন্ধ করেনি ভারত।