প্রিয়াঙ্কা শর্মার পর এবার সমীর বৈদ্য। সোশ্যাল মিডিয়ায় মুখ্যমন্ত্রীর বিরুদ্ধে মন্তব্য় করায় গ্রেফতার করা হল বিজেপির ফালাকাটা আইটি সেলের কনভেনর সমীর বৈদ্যকে। অভিযোগ, রাজ্য়ের মুখ্যমন্ত্রীর বিরূদ্ধে আপত্তিকর পোস্ট করে এলাকায় উত্তেজনা ছড়ানো চেষ্টা করেছেন তিনি। যদিও সমীর বৈদ্যর গ্রেফতারের প্রতিবাদে ক্ষোভে ফেটে পড়েছে বিজেপির কর্মী সমর্থকরা। যুবনেতার মুক্তির দাবিতে ফালাকাটা থানার সামনে বিক্ষোভ দেখান তারা।

বিজেপি ছেড়ে 'ঘরে ফিরছেন' তৃণমূলের একাধিক নেতা, কী বলছেন দিলীপ

জানা গিয়েছে, বুধবার রাতে এসএসবি ক্যাম্পের মোড়ে তার খোঁজ চালায় পুলিশ। পরে সেখান থেকেই গ্রেফতার করা হয় এই যুব নেতাকে। পুলিশ তাঁর মোবাইল ফোনটিও বাজেয়াপ্ত করেছে। জানা গিয়েছে, এই খবর চাউর হতেই  রাতেই ফালাকাটা থানায় যান বিজেপির জেলা সভাপতি গঙ্গাপ্রসাদ শর্মা। পুলিশ সমীরকে না ছাড়লে এলাকায় ভিড় ভাড়তে থাকে বিজেপি কর্মীদের। 

হাতে ঘাসফুল-মনে পদ্মফুল, দলের 'গদ্দারদের' নিয়ে চিন্তায় তৃণমূল.

পরে তিনি বলেন, একটি সাধারণ পোস্টকে ঘিরে সমীরকে গ্রেফতার করা হল। অথচ সম্প্রতি তৃণমূলের মারে এলাকায় এক বিজেপি কর্মীর মৃত্যু হয়েছে। ওই ঘটনায় এফআইআর এ নাম থাকা সত্ত্বেও অভিযুক্ত তৃণমূল পঞ্চায়েতের স্বামী সহ অভিযুক্তদের গ্রেফতার করছে না পুলিশ। এই ঘটনার তীব্র নিন্দা জানাই৷

এ প্রসঙ্গে ফালাকাটা থানার আইসি দেবদত্ত বন্দোপাধ্যায় বলেন, সোশ্যাল মিডিয়ায় মুখ্যমন্ত্রীর বিরূদ্ধে আপত্তিকর পোস্ট করেন সমীর। এলাকায় উত্তেজনা ছড়ানোর অভিযোগে তাকে গ্রেফতার করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার আলিপুরদুয়ার আদালতে পাঠানো হয়েছে তাকে। 

বাংলার লকডাউনে 'পাকিস্তান যোগ', মমতাকে নিয়ে কী বললেন অর্জুন

অতীতে একই ঘটনার সাক্ষী থেকেছে রাজ্য়। সোশ্যাল মিডিয়ায় মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিকৃত ছবি পোস্ট করায় এক বিজেপি কর্মীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। অভিযুক্ত বিজেপি কর্মীর নাম প্রিয়াঙ্কা শর্মা। নিজের ফেসবুক টাইমলাইনে প্রিয়াঙ্কা চোপড়া ও নিক জোনাসের ছবির সঙ্গে ফটোশপ করে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ছবিকে বিকৃত করে পোস্ট করার অভিযোগ উঠেছে তাঁর বিরুদ্ধে। বাড়ি থেকে প্রিয়াঙ্কা শর্মাকে গ্রেফতার করে পুলিশ।