নখ যেমন আমাদের শরীরের একটি গুরুত্বপূর্ণ অংশ। তেমন সৌন্দর্য বৃদ্ধির জন্যও নখ অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। ঠিক একইভারে জ্যোতিষশাস্ত্র মতে, নখ দেখে সেই ব্যক্তির ব্যক্তিত্ব ও ভবিষ্যৎ সম্পর্কে ধারনা করা সম্ভব। আবার নখে চন্দ্রের আকারের সাদা দাগ সেই ব্যক্তির ভবিষ্যৎ-এর বিষয়ে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য প্রদান করে থাকে। তাই নখের গড়ন ও নখের সাদা দাগ সম্পর্কে জেনে নেওয়া যাক সেই ব্যক্তির প্রকৃতি ও ভবিষ্যৎ সম্পর্কে। 

আরও পড়ুন- বাড়ি তৈরি করছেন, তবে মনে রাখুন বাস্তুর এই ৫ নিয়ম

যখন কোনও ব্যক্তির কড়ে আঙ্গুলের নখের উপর এই সাদা চিহ্ন দেখা যায়। তখন সেই ব্যক্তির অর্থ ও সাফল্য লাভ এবং পরিকল্পনা মাফিক কাজগুলি সম্পন্ন হওয়ার সম্ভাবনা থাকে। তর্জনীতে সাদা দাগ খুব শুভ বলে মনে করা হয়। এই চিহ্ন প্রেমে সাফল্যের ইঙ্গিত দেয়। এই চিহ্ন আঙ্গুলে থাকা মানে সেই ব্যক্তি অর্থ ও সম্মান প্রাপ্তির সম্ভাবনা রয়েছে। যদি কোনও ব্যক্তির শুধুমাত্র বুড়ো আঙ্গুলে এই চিহ্ন দেখা যায়, তার অর্থ হল সেই ব্যক্তির পরিবার ও সমাজ থেকে সম্মান হ্রাস পেতে চলেছে। জ্যোতিষশাস্ত্র মতে, যাদের নখ ছোট ও হলুদ প্রকৃতির হয় তাঁরা ধূর্ত ও স্বার্থপর প্রকৃতির হয়ে থাকে। এরা নিজেদের স্বার্থ সিদ্ধির জন্য যে কোনও কাজ করতে পারে। প্রতিটি আঙ্গুলে এই চিহ্ন থাকা মানে আর্থোপার্জনের পাশাপাশি আপনার হঠাৎ করেই অর্থপ্রাপ্তি ও ধনলাভের সম্ভাবনা রয়েছে। যেই ব্যক্তির নখ অসমান ও অস্বাভাবিক আকৃতির সেই সমস্ত ব্যক্তির মানসিক অবস্থা হঠাৎ করেই বদল হয়। এরা মানসিক স্থিতি বদলের সময় হঠাৎ করেই খুব হিংস্র হয়ে ওঠে। যাদের নখের গড়ন বড় অথচ পাতলা ধরনের হয়ে থাকে তাঁরা দ্রুত সিদ্ধান্ত গ্রহণ করতে অক্ষম হয়। এদের প্রায়ই লোকসানের শিকার হতে হয়।

আরও পড়ুন- বছরের প্রথম মাস কেমন কাটবে মিথুন রাশির, দেখে নিন

জ্যোতিষশাস্ত্র বলছে সঠিক নিয়মে গ্রহ-নক্ষত্র অনুযায়ী রত্ন ধারণ করলে ফিরতে পারে আপনার ভাগ্যও৷ তবে এই রত্ন ধারণের বিষয়ে নির্দিষ্ট কিছু সময় এবং নিয়ম মেনে চলা জরুরি। আমাদের প্রত্যেকের জীবনে কিছু না কিছু সমস্যা রয়েছে। জীবনের এই সমস্যাগুলোকে সহজেই কাটিয়ে ওঠার জন্য জ্যোতিষীরা নানান রত্ন ধারণের পরামর্শ দেন। তবে রত্ন ধারণে সমস্যা কাটিয়ে ওঠা গেলেও অনেকের পক্ষেই সব সময় রত্ন ধারণ সম্ভব হয় না। একইসঙ্গে গ্রহ প্রতিকারের জন্য প্রয়োজন প্রচুর পরিমান অর্থের, যা সকলের পক্ষে ব্যবস্থা করা সম্ভব হয়ে ওঠে না। এই সমস্ত কিছু ছাড়া নখের মত এমন অনেক কিছু নিয়ম আছে যাতে সহজেই আপনি আপনার আগাম ভবিষ্যৎ সম্পর্কে ধারনা করতে পারবেন।