আগেও পুলিশের চোখে ধুলো দিয়ে অনেক অসামাজিক কাজ করেছে দুষ্কৃতীরা। আর এবার পুলিশের চোখে লঙ্কার গুঁড়ো ছিটিয়ে পুলিশেরই অস্ত্র ছিনতাই করে পালাল দুষ্কৃতীরা। বিষয়টা সিনেমার মতো মনে হলেও কার্যত এমন ঘটনাই ঘটেছে বাংলাদেশের দক্ষিণের পটুয়াখালী উপজেলার বাউফলে।

সূত্রের খবর, একটি পরিত্যক্ত জমি দখল করা নিয়ে দু'দলের মধ্যে সংঘর্ষ বাধে। ঘটনাস্থলে পুলিশবাহিনী পৌঁছালে পুলিশের অস্ত্র লুঠ করা হয় বলে অভিযোগ। জানা গিয়েছে, পুলিশের চোখে লঙ্কার গুঁড়ো ছিটিয়ে দিয়ে পুলিশের পিস্তল হাতিয়ে নেয় দুষ্কৃতীরা। জানা গিয়েছে  ওই পিস্তলে ভরা ছিল ১০ রাউন্ড গুলি। দুষ্কৃতি ও পুলিশের সংঘর্ষে পুলিশ-সহ আহত হয়েছেন বেশকিছুজন। তাঁদের চিকিৎসার জন্য পাঠানো হয়েছে হাসপাতালে। 

ঘটনার ৬ ঘণ্টা পরে অবশ্য সেই পুলিশের ওই আগ্নেয়াস্ত্রটি উদ্ধার করা হয়েছে। পুলিশ জানিয়েছে, সংঘর্ষের দুই মেরুতে ছিল আবদুল হাকিম হাওলাদার ও দুলাল হাওলাদার নামে দুই ব্যক্তি।সোমবার সকালে ওই জমিতে কামাল হোসেনের লোকজন ট্রাক্টর দিয়ে জমি চাষ করতে গেলে এমন সময় তাতে বাধা দেয়  অপর পক্ষ। আর সেই ঘটনার খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে এলে সংঘর্ষ আরও জোড়দার হয়ে ওঠে। পুলিশের আগ্নেয়াস্তর ছিনতাই-এর সঙ্গে যুক্ত থাকার অভিযোগে ইতিমধ্যেই ছয়জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। বাকি অভিযুক্তদের সন্ধানে রয়েছে পুলিশ।