সম্প্রতি মুক্তি পেয়েছে অনিল কাপুরের AK vs AK ছবির ট্রেলার। সেখানেই দেখা যায় অভিনেতা এয়ার ফোর্সের উর্দি পরে অশ্লীল ভাষায় কথা বলে চলেছেন। আর এই দৃশ্য দেখার পরই নেট দুনিয়ায় জল্পনা তুঙ্গে। কেন এই দৃশ্য রাখা হয়েছে ছবিতে, এতে আর্মি অফিসারের পোশাককে অসন্মান করা হচ্ছে। মুহূর্তে  বিতর্কের ঝড় ওঠে নেট দুনিয়ায়। 

আরও পড়ুনঃ বছরের শুরুতেই কি তবে বিয়ের সানাই, অঙ্কুশ-ঐন্দ্রিলার পরিবারে নতুন অতিথি, মুহূর্তে ভাইরাল ছবি

 

 

এই নিয়ে মুখ খোলে খোদ এয়ারফোর্স। তাঁদের দাবি কেন এমন দৃশ্য রাখা হয়েছে ছবিতে। পরিস্থিতির দিকে নজর দিয়ে অবশেষে মুখ  খোলেন অনিল কাপুর। সোশ্যাল মিডিয়ায় ভিডিও শেয়ার করে জানান, তাঁর এমন কোনও উদ্দেশ্য ছিল না। তবে এ এক অফিসারের উক্তি নয়, এক বাবার আবেগ। যে তাঁর মেয়েকে কিডন্যাপ হতে দেখেছে। মেয়েকে খুঁজে না পেয়ে নিজের ধৈর্য্য হারালে ঠিক যে পরিস্থিতি হয়, তাই তিনি তুলে ধরেছেন। 

 

 

ছবির নির্মাতা সংস্থা বা অনিল কাপুর ইচ্ছে করে আঘাত করতে চাননি বা সন্মান নষ্ট করতে চাননি। তাও এর দ্বারা যাঁদের মনে আঘাত পৌঁচ্ছেছে তাঁদের কাছে ক্ষমা চেয়েনিলেন অভিনেতা। নেটফ্লিক্সের AK vs AK মুক্তি পাবে ২৪ ডিসেম্বর। অনুরাগ কাশ্যপ পরিচালিত এই ছবির ট্রেলার মুক্তি পাওয়া মাত্রই তা ভাইরাল হয়ে ওঠে। এরপরই তা নেটদুনিয়ায় চর্চিত হতে থাকে একটি মাত্র দৃশ্যকে ঘিরে। যদিও এই দৃশ্য বাদ পড়বে কি না তা নিয়ে এখনও কিছু জানানো  হয়নি।