লকডাউনের মধ্যেই চলে গেলেন বর্ষীয়ান অভিনেতা ঋষি কাপুর। লকডাউনের মধ্যে যেন কোনও নিয়ম ভঙ্গ না হয় এবং অভিনেতার শেষযাত্রাতে কেউ নিয়মবিধি লঙ্ঘন না করে সেখানে হাজির হন কাপুর পরিবারের পক্ষ থেকে ভক্তদের কাছে তা আগেই আর্জি জানানো হয়েছে। সূত্র থেকে জানা গেছে,মুম্বইয়ের স্যর এইচএন রিলায়েন্স ফাউন্ডেশনের হাসপাতাল থেকে অভিনেতাকে চন্দনওয়াড়ি শশ্মানে  নিয়ে আসা হবে। এবং এখানেই তার শেষকৃত্য সম্পন্ন করা হবে। আজ সকাল ৮টা ৪৫ মিনিটেই শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন ঋষি কাপুর। তার মৃত্যুতে সকলেই শোকাহত।

আরও পড়ুন-চলে গেলেন ঋষি, কিন্তু তৈমুরের মধ্যে থেকে গেল তার ছায়া...

বলি অভিনেতা ইরফান খানের মৃত্যুর শোক কাটতে না কাটতে বলিউডকে বিদায় জানিয়ে চলে গেলেন ঋষি কাপুর। বলিউডে ফের ইন্দ্রপতন। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৬৭ বছর। কিংবদন্তি অভিনেতা ঋষি কাপুরের  মৃত্যুতে শোকস্তব্ধ চলচ্চিত্র জগৎ। অভিনেতার দাদা রণধীর কাপুর জানিয়েছেন, 'দীর্ঘদিন ধরে লিউকোমিনার সঙ্গে লড়াই চালিয়েছে ঋষি । দুই বছর পর অবশেষে আজ লড়াই শেষ হয়েছে। চন্দনওয়াড়ি শশ্মানে ঋষির শেষকৃত্য সম্পন্ন হবে। লকডাউনের জেরে মেয়ে ঋদ্ধিমা আসতে পারবে কিনা তা নিয়েও সন্দেহ রয়েছে। কিন্তু সূত্র থেকে জানা গেছে, এহেন পরিস্থিতি বাবাকে শেষবারের মতো দেখতে প্রশাসনের কাছে আবেদন জানিয়েছেন ঋদ্ধিমা কাপুর'।

আরও পড়ুন-১৪ বছরের নীতুকে দেখলেই খুনসুটি শুরু করতেন ঋষি, বিয়ের দিন জ্ঞান হারিয়েছিলেন মিয়া-বিবি...

  দীর্ঘদিন ধরেই ক্যান্সারে ভুগছিলেন অভিনেতা। এই বছরটা যেন বলিউডের খুব খারাপ সময়। একের পর এক  মহাতারকাকে হারাল ভারতীয় চলচ্চিত্র জগৎ। চলতি বছরেরই ফেব্রুয়ারি মাসে দিল্লির দূষণে অসুস্থ হয়ে পড়েছিলেন ঋষি কাপুর। সেসময়ও হাসপাতালে ভরতি করতে হয়েছিল তাঁকে। অসুস্থতার কারণে  আরমান জৈনের বিয়েতে যেতে পারেননি ঋষি, নীতু ও রণবীর কেউই। হলিউডি রিমেক ছবি 'দ্য ইনর্টান'-এ অভিনয় করার কথা ছিল ঋষি কাপুরের। যেখানে তার বিপরীতে দীপিকা পাড়ুকোনকে দেখা যেত। অভিনেতা ইরফান খানের মৃত্যুর পর ঋষি কাপুরের মৃত্যুতে গোটা চলচ্চিত্র জগতে শোকের ছায়া নেমে এসেছে।