করোনা আতঙ্কে বিপুল ক্ষতির মুখে বিনোদন জগৎ। ইতিমধ্যেই কয়েকশো কোটি টাকার ক্ষতি হয়ে গিয়েছে বলিউডে। করোনা আতঙ্কে বাতিল হয়েছে যাবতীয় শ্যুটিংয়ের কাজ। যার জেরে সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্থ হতে চলেছে দিন মজুরদের আয়। অর্থাৎ জুনিয়ার টেকনিশিয়ানরা দৈনিক আয় নিয়ে চিন্তিত প্রডিউসার্স গিল্ড ইন্ডিয়া। তাদের জন্য ত্রাণ তহবিলের ব্যবস্থা করল সংস্থা।

আরও পড়ুনঃকরোনা থেকে বাঁচতে হাত ধুতে গিয়ে হচ্ছে সাংঘাতিক ভুল, মনে করিয়ে দিলেন মধুমিতা

আরও পড়ুনঃ৪০ এও হটনেস অ্যালার্ট, আজও চোখ কপালে তোলে 'কসমিক সেক্স'র ঋ

 

 

সম্প্রতি এক বিজ্ঞপ্তিতে তারা জানান, "করোনা ভাইরাসের জন্য বিনোদন ইন্ডাস্ট্রি মারাত্মক ক্ষয় ক্ষতির মধ্যে দিয়ে যাচ্ছে। এরই মধ্যে সবচেয়ে প্রভাবিত হতে চলেছে সেসমস্ত কর্মীরা যারা দিন মজুরির কাজ করেন। তাদের পাশে দাঁড়ানোই এখন আমাদের একমাত্র লক্ষ্য। তাই প্রডিউসার্স গিল্ড অফ ইন্ডিয়া ত্রাণ তহবিল গড়ার সিদ্ধান্তে এসেছে। বিনোদন জগতের সঙ্গে যুক্ত প্রত্যেক মানুষকে আমরা এই ত্রাণ তহবিলে যথাসম্ভব সাহায্য করুন। দিন মজুরির কাজের সঙ্গে যাঁরা যুক্ত তাঁদের যেন কোনও গুরুতর আর্থিক সমস্যা না হয় তা দেখার দায়িত্ব অবশ্যই আমাদের।"

আরও পড়ুনঃকরোনা আতঙ্কে বাড়িবন্দি গোটা বিনোদন জগৎ, এর মধ্যেই নতুন প্রেম খুঁজে পেলেন দীপিকা 

এর জন্য একটি মেল আইডি তৈরি করেছে সংস্থা। সেখান থেকেই পাওয়া যাবে ত্রাণ তহবিলে দান করার সমস্ত তথ্য। এই জুনিয়র টেকনিশিয়ন অর্থাৎ ইন্ডাস্ট্রির আনসাং হিরোরাই প্রতিটি ছবিকে সিনেপর্দায় তুলে ধরার জন্য দিনরাত অসম্ভব পরিশ্রম করেন। আট ঘন্টার সময় পরিমাপ করা থাকলেও তা অনায়াসে দশ ঘন্টা পেরিয়ে যায়। আগামী ৩১ মার্চ অবধি শ্যুটিং বন্ধ থাকা মানে তাদের জীবনের বিপুল ক্ষতি। পরিচালক সুধীর মিশ্র জুনিয়র টেকনিশিয়নদের জন্য ত্রাণ তহবিলের কথা সমক্ষে রাখেন। যার পরই নেওয়া হয় এই সিদ্ধান্ত।