বলিউডের আকাশে এখন ঘন কালো মেঘ। ফের এক লেজেন্ডকে হারাল ভারতীয় ফিল্ম। বুধবার ইরফান খানের পর চিরতরে চলে গেলেন ঋষি কাপুর। সঙ্কটজনক অবস্থায় বুধবারই হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন তিনি। আর অল্প সময়ের ব্য়বধানে সব শেষ।তার মৃত্যুর খবর প্রথমে জানান অমিতাভ বচ্চন৷ তারপর পরিবারের পক্ষ থেকে সেই খবর নিশ্চিত করেন রণধীর কাপুর৷ ঋষি কাপুরের মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করেছেন অভিনেতা প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্য়ায়।

আরও পড়ুন, 'অমিতাভ নামক ঝড়ের সামনা-সামনি কেবল তিনিই করেছিলেন ', ঋষি কাপুরের মৃত্য়ুতে জানালেন টোটা রায় চৌধুরি

প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্য়ায় জানিয়েছেন,' ঋষি কাপুর হলে ভারতীয় ছবির প্রতিষ্ঠান।তাঁর মৃত্যুতে একটি যুগের অবসান ঘটেছে। তবে পর্দায় তাঁর অবিনয়ের স্ফুলিঙ্গ চিরকাল রয়ে যাবে। আমি শান্তি কামনা করি।'উল্লেখ্য়, বুধবার ইরফান খানের পর চিরঘুমের দেশে গেলেন ঋষি কাপুর। অত্যন্ত সংকটজনক অবস্থায় বুধবারই হাসপাতালে ভরতি ছিলেন তিনি। মুম্বইয়ের এইচএন রিলায়েন্স হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছিল তাঁকে। আইসিইউতেই রাখা হয়েছিল প্রবীণ বলিউড অভিনেতাকে। চলতি বছরেরই ফেব্রুয়ারি মাসে দিল্লির দূষণে অসুস্থ হয়ে পড়েছিলেন ঋষি কাপুর। সেসময়ও হাসপাতালে ভর্তি করতে হয়েছিল তাঁকে। যার জন্যে একমাত্র ভাগনে আরমান জৈনের বিয়েতে যেতে পারেননি ঋষি, নীতু ও রণবীরের কেউই। তাঁর মৃত্যুতে শোকের ছায়া নেমেছে চলচ্চিত্র জগতে।

 

#RishiKapoor, a legend and institution in Indian Cinema. An era comes to end with his demise. But his charm on screen will live forever. May you rest in peace.

— Prosenjit Chatterjee (@prosenjitbumba) April 30, 2020

 

আরও পড়ুন, 'অস্ট্রেলিয়াতে প্রত্য়েক সন্ধেবেলা ওনার থেকে মজার গল্প শুনতাম', ঋষি কাপুরের মৃত্যুতে স্মৃতির শহরে ঋতুপর্ণা

 উল্লেখ্য়, গত বছর কর্কটরোগকে জয় করে স্ত্রী নিতুকে নিয়ে দেশে ফিরেছিলেন ঋষি কাপুর। ধীরেধীরে সুস্থও হয়ে উঠেছিলেন। কিন্তু মাসখানেক ঘুরতেই ফের অসুস্থ হয়ে পড়লেন বলিউডের প্রবীণ অভিনেতা। বুধবারই অভিনেতা ইরফান খান প্রয়াত হয়েছেন। আর তারই মাঝে   ঋষি কাপুরের চলে যাওয়ায় শোকের ছায়া সারা দেশে।

আরও পড়ুন, 'আমার নতুন ছবি 'কয়েদখানা'তে অভিনয়ের কথা ছিল ইরফানের', অনেক অজানা কথা বললেন পরিচালক গৌতম ঘোষ